পুঠিয়ায় প্রকাশ্যে ধূমপান করায় তরুণী আটক, মুচলেকায় মুক্তি

January 12, 2019 at 5:16 pm

পুঠিয়া প্রতিনিধি:
রাজশাহীর পুঠিয়ায় চা স্টলে প্রকাশ্যে ধুমপান করার সময় এক তরুণী ও তার বন্ধুকে আটক করে পুঠিয়া থানা পুলিশ। শুক্রবার বিকেলে উপজেলার বানেশ্বর ইউনিয়নের অন্তর্গত ঢাকা-রাজশাহী মহাসড়কের পার্শে অবস্থিত একটি চা স্টল থেকে তাদের দু’জনকে আটক করে থানায় নিয়ে আসা হয়। পরে শনিবার সকালে তরুণীর বাবা-মায়ের উপস্থিতিতে মুচলেকা আদায় করে তাকে ছেড়ে দেয়া হয়। কিন্তু তার বন্ধুকে মাদকসেবনকারী হিসেবে মামলা দিয়ে জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে।

আটককের মুচলেকায় মুক্ত তরুণী হলেন, নাহিয়ান তাবাসসুম (১৯)। সে রাজশাহী মহানগরীর ভদ্রা এলাকার বাসিন্দা প্রকৌশলী আবদুর রহমানের মেয়ে এবং তরুণীর বন্ধু রাতুল (২৪) সেও নগরীর চন্দ্রীমা থানা এলাকার তুহিন আলীর ছেলে। এছাড়া পৃথক পৃথক অভিযানে আরো ৫ জন মাদকসেবীর বিরুদ্ধে মামলা দিয়ে তাদেরকে জেল হাজতে প্রেরণ করেছে পুঠিয়া থানা পুলিশ।

আটককৃত অন্যরা হলেন, নওগাঁর অনিল চন্দ্র ঘোষের ছেলে দুলাল চন্দ্র ঘোষ (৩০), নাটোরের পূর্ণ চন্দ্র চৌধুরির ছেলে মানিক চন্দ্র চৌধুরি (৩০), ঢাকার আশুলিয়া থানার আহাদ আলীর ছেলে শরিফুল ইসলাম হালিম (৩২), গাজিপুর শিমুল তলী এলাকার তাজুল ইসলামের ছেলে রাজু আহম্মেদ (২৬) ও চারঘাট থানার ওহেদ আলীর ছেলে রুহুল আমিন (২৫)। থানার ডিউটি অফিসারের রেজিস্ট্রার থেকে গ্রেফতারকৃতদের নাম পরিচয় জানা গেছে।

থানা পুলিশের দাবি, শুক্রবার বিকেলে ওই তরুণ-তরুণী চা স্টলে বসে প্রকাশ্যে ধুমপান করছিলো। প্রকাশ্যে তরুণীর ধুমপানের দৃশ্য দেখে স্থানীয়রা সমালোচনা করছিলেন। পরে বিষয়টি পুঠিয়া থানা পুলিশের উপ-পরিদর্শক এসআই পারভেজ হোসেন জানতে পেরে সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে তরুণ-তরুণীকে আটক করে থানায় এনে তাদের পরিবারকে খবর দেয়। খবর পেয়ে তরুণীর পরিবারের সদস্যরা থানায় এসে মুচলেকা দিয়ে তাকে ছাড়িয়ে নিয়ে যায়। তবে তরুণীর বন্ধু রাতুলকে মাদকসেবনকারী হিসেবে ৩৬ ধারায় মামলা দিয়ে আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে প্রেরণ করে।

থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সাকিল উদ্দিন আহম্মেদ জানান, প্রকাশ্যে ধুমপান করা অবস্থায় আটক তরুণীকে তার বাবা মায়ের জিম্মায় ছেড়ে দেয়া হয়েছে এবং তরুণীর বন্ধুসহ আটক বাকী আসামীদের মামলা দিয়ে আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে।

স/শা

Print