বগুড়ায় মাদ্রাসা ছাত্রীকে বিয়ে দিতে না চাওয়ায় বাবাকে ছুরিকাঘাতে হত্যা

May 6, 2018 at 12:16 am

সিল্কসিটিনিউজ ডেস্ক:

বগুড়ায় এক মাদ্রাসা ছাত্রীকে বিয়ে দিতে রাজি না হওয়ায় তার বাবা ছায়েদ আলীকে (৪০) ছুরিকাঘাতে হত্যা করা হয়েছে। শনিবার রাতে গাবতলী উপজেলার পেরীরহাট পূর্বপাড়ায় নিহত ওই ব্যবসায়ীর বাড়িতে এ ঘটনা ঘটেছে।

এ ঘটনায় পুলিশ রনি আহম্মেদ (২০) নামে এক যুবককে গ্রেফতার করেছে। পুলিশ বলছে, রনির নেতৃত্বেই এ হামলা হয়েছিল।

গাবতলি থানা পুলিশ জানায়, উপজেলার মহিষাবান ইউনিয়নের পেরীরহাট পুর্বপাড়া গ্রামের মৃত মদন আলীর ছেলে ছায়েদ আলী ব্যবসা করতেন। তার মেয়ে স্থানীয় একটি মাদ্রাসায় দশম শ্রেণির ছাত্রী।

তাকে পার্শ্ববর্তী শাজাহানপুরের নিশ্চিন্তপুর গ্রামের সাইফুল ইসলামের ছেলে কলেজ ছাত্র রনি উত্যক্ত করে আসছিল। রনি সম্প্রতি তাকে বিয়ের প্রস্তাব দিলে ছায়েদ আলী তা প্রত্যাখ্যান করেন। এতে রনি ক্ষুব্ধ হয়।

শনিবার রাত ৮টার দিকে রনি ৪-৫ জন সঙ্গি নিয়ে ছায়েদ আলীর বাড়িতে যায়। রনি তার সঙ্গে ওই মেয়েকে বিয়ে দিতে চাপ সৃষ্টি করে। এ নিয়ে বাকবিতন্ডার এক পর্যায়ে ছায়েদ আলীর উপর হামলা ও ছুরিকাঘাত রনি ও সহয়োগীরা।

গুরুতর আহত অবস্থায় তাকে বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেয়ার সময় পথিমধ্যেই তিনি মারা যান। খবর পেয়ে পুলিশ দ্রুত অভিযান চালিয়ে রনিকে গ্রেফতার করে।

গাবতলী মডেল থানার ওসি খায়রুল বাসার জানিয়েছেন, বিয়েতে রাজি না হওয়ায় রনি মেয়ের বাবাকে ছুরিকাঘাতে হত্যা করেছে। রোববার আদালতের মাধ্যমে তাকে কারাগারে প্রেরণ করা হবে।

Print