তানোরে কাল বৈশাখী ঝড়ে ধান ও রবি ফসলের ব্যাপক ক্ষতি

April 20, 2017 at 5:34 pm

তানোর প্রতিনিধি:
তানোরে কাল বৈশাখী ঝড় ও বৃষ্টিতে বোরো ধান ও আমসহ ফসলের ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে। এ ঘটনায় কৃষকসহ আম বাগানীদের মধ্যে হতাশা বিরাজ করছে। ফলে এলাকার চাষিরা ফলন বিপর্যয়ের আশংকা করছেন।
প্রত্যক্ষদর্শী ও কৃষকদের সাথে কথা বলে জানা গেছে, তানোর উপজেলার ৭টি ইউনিয়ন ও ২টি পৌর এলাকায় গত বুধবার সন্ধ্যায় প্রচন্ড ঝড় ও বৃষ্টি’র কারনে শীষ বের হওয়া বোরো ধান হেলে মাটি’র সাথে শুয়ে পড়ায় কৃষকদের মুখে হতাশার চিহ্ন ফুটে উঠেছে।
কৃষকরা বলছেন, আগাম লাগানো বোরো ধানের শীষ বের হয়ে আধা পাকা অবস্থায় থাকা ধান গুলো মাটি’র সাথে হেলে দেবে যাওয়ায় ফলন কম হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। অপর দিকে ঝড়ে এলাকার গাছে থোকায় থোকায় ধরে থাকা আম ঝরে পড়ায় আম চাষীরা ক্ষতির মুখে পড়েছেন। রবি ফসল ভুট্টা, পেঁপে, লিচু ও কলাসহ সাজিনা গাছ ভেঙ্গে পড়েছে।
এ ব্যাপারে তানোর পৌর এলাকার ধানতৈড় গ্রামের আবু কালাম বলেন, তিনি এবছর ৫বিঘা জমিতে বোরো ধান চাষ করেছিলেন, বর্তমানে তার জমি ধান আধাঁ পাকা অবস্থ্য়া ছিল হঠাৎ কালবৈশাখীর ঝড়ের কারনে দার জমির ধান মাটির সাথে শুয়ে পড়েছে। ফলে তার জমির বোরো ধানের ফলন কম হবে।
তানোর পৌর এলাকার তালন্দ উপর পাড়া গ্রামের আমচাষী মোজাম্মেল হক সিল্কসিটি নিউজকে বলেন, হঠাৎ কালবৈশাখী ঝড়-বৃষ্টি’র কারনে আমার বাগানে থোকায় থোকায় ধরে থাকা আমের কড়ালী ঝরে পড়ায় ব্যাপক ক্ষতি’র মুখে পড়েছি। তিনি আরো বলেন, কালবৈশাখীর ঝড়ে তানোর উপজেলার প্রায় গাছের অর্ধেক আম কড়ালী ঝরে পড়েছে।
তানোর পৌর এলাকার বেলপুকুরিয় গ্রামের আব্দুস সালাম বলেন, তার ২বিঘার লিচু বাগানের লিচু’র গুটি গুলো ঝরে পড়েছে। ফলে এবছর অন্য বছলের চেয়ে ফলন ও লাভ কম হবে।
তালন্দ গ্রামের নুরুল ইসলাম বলেন, কাল বৈশাখীর ঝড়ে ভুট্টার গাছগুলো হেলে পড়েছে। ফলে ভুট্টার ফলন বিপর্যয়ের সম্ভাবনা দেখা দিয়েছে।
তানোর উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা শফিকুল ইসলাম সিল্কসিটি নিউজকে বলেন, আমি একটি মিটিংএ আছি, ঝড়ে ধান ও আমসহ রবি ফসলের ক্ষতি হয়েছে। তবে, কি পরিমান ক্ষতি হয়েছে তা তিনি জানাতে পারেননি।
তানোর উপজেলা নির্বাহী অফিসার শওকাত আলী বলেন, আমি সকালে কামারগাঁ ইউপি এলাকায় গিয়েছিলাম, বোরো ধান মাটিতে হেলে যাওয়ায় কিছুটা ক্ষতি হবে। কৃষি কর্মকর্তাকে ক্ষতি নির্ধারন করতে বলা হয়েছে।
স/শ

Print