কাজে ফিরতে পারছেন না রাজশাহী বেতারের ২৫ কর্মী

নিজস্ব প্রতিবেদক:

বাংলাদেশ বেতার রাজশাহীতে কর্মরত ২১ জন অনিয়মিত শিল্পী ও ৪ জন সংবাদকর্মীকে গত ৮ নভেম্বর মৌখিভাবে চাকরিচ্যুত করা হয়। এই আদেশের বিপক্ষে মামলা করেন ওই সকল কর্মী। এতে করে ২৭ নভেম্বর হাইকোর্ট থেকে তাদের চাকরিচ্যুতির আদেশটি মামলা নিষ্পত্তি না হওয়া পর্যন্ত প্রত্যাহার করে নেয়ার আদেশ দেয়া হয়। কিন্তু সে আদেশ আমলে নেয়নি রাজশাহী বেতার কর্তৃপক্ষ। কর্মীরা অফিসে আসলেও তাদেরকে কাজে ফিরতে দেয়া হচ্ছে না বলে অভিযোগ উঠেছে।

জানা গেছে, ২১ জন অনিয়মিত শিল্পী ও ৪ জন সংবাদকর্মীকে মৌখিকভাবে চাকরিচ্যুত করা হলেও লিখিত কোন আদেশ দেয়া হয়নি। এ ঘটনায় ওই কর্মীরা লিখিত আদেশনামা চাইলেও তাদেরকে তা দেয়া হয়নি বলে জানা গেছে।

পার্থ চৌধুরী নামের ভুক্তভোগী এক অনিয়মিত শিল্পী বলেন, দেশজুড়ে ৮০-৯০ জন অনিয়মিত শিল্পীকে চাকরিচ্যুত করা হয়েছে। তারই ধারাবাহিকতায় রাজশাহী বেতারের আমাদের ২১ জন অনিয়মিত শিল্পী, ৪ জন সংবাদকর্মী ও রংপুর বেতারের ৭ জনকে মৌখিকভাবে চাকরিচ্যুত করা হয়। এই শিল্পীরা ৫ বছর থেকে শুরু করে ২৯ বছর পর্যন্ত চাকরি করে আসছেন।

তিনি আরো বলেন, আমাদেরকে কোন লিখিত চাকরিচ্যুতির আদেশ দেয়া হয়নি। আমরা লিখিত চেয়েও পাইনি। পরবর্তীতে আমরা রাজশাহী ও রংপুর বেতারের মোট ৩২ জন কর্মী একযোগে এই আদেশের বিরুদ্ধে মামলা করি। এতে মহামান্য হাইকোর্ট মামলাটি নিষ্পত্তি না হওয়া পর্যন্ত আমাদেরকে কাজে বলবৎ রাখার নির্দেশ দেন। কিন্তু আমরা অফিসে গেলেও আমাদেরকে কাজ দেয়া হচ্ছে না।

এ বিষয়ে জানতে বাংলাদেশ বেতারের আঞ্চলিক উপ-পরিচালক হাসান আখতারের সঙ্গে যোগাযোগের চেষ্টা করে হলেও তার মুঠোফোন বন্ধ পাওয়া গেছে।

 

স/শা

Print