মেয়ের আবেগঘন রচনা শুনে আবেগাপ্লুত সুস্মিতা

সিল্কসিটিনিউজ ডেস্ক:

বলিউডের জনপ্রিয় তারকা সুস্মিতা ঘোর সমালোচকরাও তার মানবিক গুণাবলির প্রশংসা করেন। এবার মেয়ের আবেগঘন রচনা শুনে আবেগাপ্লুত হলেন সুস্মিতা।

ইন্ডিয়া টিভির অনলাইন সংস্করণের প্রতিবেদনে জানা যায়, ২০০০ সালে মাত্র ২৪ বছর বয়সে বড় মেয়েকে দত্তক নেন সুস্মিতা। এর পর ২০১০ সালে দত্তক নেন ছোট মেয়ে আলিশাকে। কন্যা দত্তক নেয়া ভক্ত ও প্রিয়জনরা তার প্রশংসা করেন। অনেকের কাছে সুস্মিতা হয়ে ওঠেন রোল মডেল।

সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ভীষণ সক্রিয় সুস্মিতা। বিভিন্ন সময় তাকে দেখা যায় মেয়েদের নিয়ে বিভিন্ন মিষ্টিমধুর মুহূর্ত শেয়ার করেন তিনি। এবার মেয়ে আলিশাকে তার স্কুল থেকে হৃদয়ঘনিষ্ঠ বিষয় নিয়ে রচনা লিখতে বলা হয়। এতে মা সুস্মিতা তাকে দত্তক নেয়ার বিষয়টি নিয়ে রচনা লেখে আলিশা।

সম্প্রতি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ইনস্টাগ্রামে একটি ভিডিও শেয়ার করেন সুস্মিতা। সেখানে দেখা যায়, আলিশা সুস্মিতাকে ওই রচনা পড়ে শোনাচ্ছেন। এতে সুস্মিতাকে আবেগাপ্লুত হতে দেখা যায়।

সুস্মিতা সেন ভারতীয় চলচ্চিত্র অভিনেত্রী ও প্রাক্তন মডেল। সেন ১৯৯৪ সালে ১৮ বছর বয়সে ফেমিনা মিস ইন্ডিয়ার মুকুট জয় করেন। মূলত হিন্দি চলচ্চিত্রে কাজের জন্য পরিচিতি লাভ করলেও তিনি তামিল ও বাংলা ভাষার চলচ্চিত্রেও অভিনয় করেছেন। চলচ্চিত্রে তার কাজের জন্য তিনি একটি ফিল্মফেয়ার পুরস্কারসহ একাধিক পুরস্কার অর্জন করেছেন।

Print