ফারাক্কার গেট খুলে দেয়ায় বাড়তে শুরু করেছে পদ্মায় পানি: বন্যার আশঙ্কা

September 30, 2019 at 9:11 pm

নিজস্ব প্রতিবেদক:

টানা বর্ষণে পদ্মাসহ দেশের বিভিন্ন নদ-নদীতে বাড়তে শুরু করেছে পানি। এরই মধ্যে ভারতে বন্যা পরিস্থিতি উন্নতির জন্য দেশটির পশ্চিমবঙ্গ রাজ্যে ফারাক্কার প্রায় সবগুলো গেট খুলে দেয়ার অস্বাভিক ভাবে বাড়তে শুরু করেছে পদ্মার পানি। এতে রাজশাহী অঞ্চলের বিভিন্ন চর ও নিচু এলাকা প্লাবিত হওয়ায় আশঙ্কা দেখা দিয়েছে মানুষের মাঝে ।

শুষ্ক মৌসুমে রাজশাহীর পদ্মায় পানি না থাকলেও রাজশাহীর এসব অঞ্চল এখন ডুবতে বসেছে ফারাক্কা থেকে ধেয়ে আসা পানিতে। হুমকির মুখে পড়তে বসেছে শহর রক্ষা বাঁধও। ইতোমধ্যে ভাঙন প্রতিরোধে বেশ কিছু দিন থেকেই থেকে নগরীর টি-বাঁধ এলাকায় বালুভর্তি জিও ব্যাগ তৈরি করা শুরু হয়েছে।

এদিকে, গত ২৪ ঘণ্টায় পদ্মায় প্রবাহ বেড়েছে ১১ সেন্টিমিটার।  ফলে পদ্মার পানি এখন বিপদসীমার ১৮ দশমিক ৫০ মিটারের কাছাকাছি চলে এসেছে। ফারাক্কার সবগুলো গেট খুলে দেয়ার পরে ধীরে ধীরে বাড়তে শুরু করেছে এ পানি।

রাজশাহী পাউবোর নির্বাহী প্রকৌশলী সৈয়দ শহিদুল আলম জানান, টানা বর্ষনের হিসেবে পদ্মায় স্বাভাবিক হারেই পানি বৃদ্ধি পাচ্ছে। গত ২৪ ঘণ্টায় পদ্মায় প্রবাহ বেড়েছে ১১ সেন্টিমিটার। এর আগের ২৪ ঘণ্টায় প্রবাহ বেড়েছিল ৬ মিটারের মত। ভারতের উত্তর প্রদেশ ও বিহারে বৃষ্টিপাতের কারণে প্রবাহ বাড়তে পারে।

তিনি আরও জানান, এর আগে আগামী ৩ অক্টোবর রাজশাহীতে পদ্মার পানি বিপৎসীমা অতিক্রম করতে পারে বলে ধারনা করা হচ্ছিল। কিন্তু এখন যেভাবে পানি প্রবাহ বাড়ছে তাতে একদিন আগেই তা বিপৎসীমায় পৌঁছে যেতে পারে। তবে এখনও পদ্মার পানি বিপদসীমার নিচ দিয়েই প্রবাহিত হচ্ছে।

রাজশাহী নগরীর বড়কুঠি পয়েন্টে পাউবোর গেজ লিডার এনামুল হক বলেন, সোমবার সন্ধ্যা ৬টায় রাজশাহীতে পদ্মায় প্রবাহ রেকর্ড করা হয়েছে ১৮ দশমিক শূণ্য এক মিটার। এর আগে সকালে প্রবাহ ছিল ১৭ দশমিক ৯০ মিটার। প্রতি ঘণ্টায় অন্তত ২ সেন্টিমিটার করে পানি প্রবাহ বাড়ছে পদ্মায়।

 

এদিকে, ভারতের উত্তর প্রদেশ ও বিহার রাজ্যে প্রবল বর্ষণের ফলে গঙ্গা নদীতে পানি প্রবাহ বেড়ে গেছে। গত কয়েক দিনের টানা বৃষ্টিপাতে বিহারের পাটনাসহ বিস্তীর্ণ এলাকায় বন্যার সৃষ্টি হয়েছে। এতে রাজ্যে কমপক্ষে ২৭ জনের মৃত্যু হয়েছে। এমন পরিস্থিতিতে ফারাক্কা বাঁধের সবক’টি লকগেট একসঙ্গে খুলে দিয়েছে ভারত।

আজ সোমবার (৩০ সেপ্টেম্বর) ফারাক্কা বাঁধের ১০৯টি লকগেট খুলে দিয়েছে ব্যারেজ কর্তৃপক্ষ। গেট খুলে দেয়ায় নদীর ভাটিতে প্লাবনের আশঙ্কা তৈরি হয়েছে। এর ফলে বাংলাদেশ ও লাগোয়া পশ্চিমবঙ্গ রাজ্যের মুর্শিদাবাদ জেলায় বন্যার আশঙ্কা দেখা দিয়েছে।

স/অ

 

 

 

 

Print