আসামির কিল-ঘুষি খাওয়া সেই পুলিশ কর্মকর্তা বরখাস্ত

সিল্কসিটিনিউজ ডেস্ক: বগুড়ার চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালত চত্বর থেকে আসামি পালিয়ে যাওয়ায় সহকারী টাউন পরিদর্শক (এটিএসআই) কবিরকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে।

প্রিজন ভ্যানে তোলার সময় মাদক মামলার আসামি সাইফুল ইসলাম সাগর (২৮) ওই পুলিশ কর্মকর্তাকে কিলঘুষি ও লাথি দেয়ার পর হ্যান্ডকাপ খুলে পালিয়ে যায়।

বুধবার বিকাল পর্যন্ত তিন দিনে পুলিশ তাকে গ্রেফতার করতে পারেনি।

কোর্ট ইন্সপেক্টর আবুল কালাম আজাদ জানান, কর্তব্যে অবহেলায় পুলিশ সুপার তাকে (কবির) সাময়িক বরখাস্ত করে পুলিশ লাইন্সে ক্লোজড করেছেন।

রোববার বিকালে তাকে আদালতে হাজির করা হয়। আদালত তার জামিন আবেদন নামঞ্জুর করে জেল হাজতে পাঠানোর নির্দেশ দেন। সন্ধ্যায় চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে দায়িত্বরত পুলিশ সদস্যরা জামিন নামঞ্জুর হওয়া আসামিদের সঙ্গে সাগরকে জেলা কারাগারে নেয়ার জন্য প্রিজন ভ্যান তুলছিলেন।

এ সময় মাদক মামলার আসামি সাগর এটিএসআই কবিরের বুকে কিল, ঘুষি ও লাথি দেন এবং হ্যান্ডকাপ খুলে পালিয়ে যান। এ ঘটনায় আদালতের এএসআই এমদাদুল হক রোববার রাতে সদর থানায় মামলা করেছেন।

মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা সদর ফাঁড়ির এসআই জিলালুর রহমান জানান, পালিয়ে যাওয়া আসামি সাগরকে বুধবার বিকাল পর্যন্ত গ্রেফতার করা সম্ভব হয়নি।

 

Print