ক্রাইস্টচার্চ হামলা: সোশ্যাল মিডিয়ার ব্যবহার নিয়ে পিটারসেনের বার্তা

March 16, 2019 at 9:43 am

সিল্কসিটিনিউজ ডেস্ক:

নিউজিল্যান্ডের ক্রাইস্টচার্চে মসজিদ আল নূরে ভয়াবহ হামলায় অল্পের জন্য প্রাণে বেঁচে গেছেন বাংলাদেশ ক্রিকেটাররা। তামিম-মুশফিকদের কোনো ক্ষতি না হলেও নারকীয় এ হামলায় ৪১ জন নিহত হয়েছেন। নৃশংস এ ধ্বংসযজ্ঞের তীব্র নিন্দা প্রকাশ করেছেন ইংল্যান্ড ক্রিকেট দলের সাবেক অধিনায়ক কেভিন পিটারসেন।

সোশ্যাল মিডিয়ায় এ ঘটনার ভিডিও দেখে গভীর মর্মাহত তিনি। ক্ষোভ ঝেড়েছেন বহুল ব্যবহৃত মাধ্যমের ওপরও। এই নারকীয় হত্যাযজ্ঞ দেখে, জঘন্য দুনিয়ায় বাস করছেন বলে মনে হচ্ছে পিটারসেনের।

টুইটবার্তায় তিনি বলেন, ক্রাইস্টচার্চে বর্বর দৃশ্য! গর্দভদের হাতে পড়ে শেষ অভিজাত শহরটি। অন্য কোথাও থেকে উদ্ভব এ ঘৃণার। টুইটার ঘুরে দেখছি ঘৃণা, খিস্তি, তর্জন-গর্জন আর অমার্জিত আচরণ। সোশ্যাল মিডিয়া চালানোর তথা ব্যবহারের দিকনির্দেশনা পাল্টাতে হবে এবং তা শিগগির। আমরা এক জঘন্য দুনিয়ায় বাস করছি।

ছবির মতো সুন্দর শহর ক্রাইস্টচার্চ। পরতে পরতে রূপকথার পসরা। সেখানেই এখন থমথমে অবস্থা বিরাজ করছে। এখানকার হ্যাগলি ওভালে শনিবার বাংলাদেশ-নিউজিল্যান্ড তৃতীয় টেস্ট মাঠে গড়ানোর কথা ছিল। শুক্রবার ছিল ম্যাচ পূর্ববর্তী সংবাদ সম্মেলন। সেই কারণেই মসজিদে যেতে দেরি হয় টাইগারদের। ফলে প্রাণে বেঁচে ফেরেন তামিম-মুশফিকরা।

ন্যাক্কারজনক এ ঘটনায় সমঝোতার ভিত্তিতে শেষ টেস্ট বাতিল করেছে দুই দেশের ক্রিকেট বোর্ড। দেশে ফিরে আসছেন টাইগাররা। কাপুরুষোচিত এ ঘটনায় গোটা ক্রিকেট বিশ্বে বইছে সমালোচনার ঝড়। নিন্দা জানাচ্ছেন সাবেক ও বর্তমান ক্রিকেটের রথী-মহারথীরা। এবার তাতে শামিল হলেন দক্ষিণ আফ্রিকা বংশোদ্ভূত ইংলিশ ক্রিকেটার পিটারসেন।

Print