ঢাকা-১: বিএনপি প্রার্থী আশফাক আটকের পর মুক্ত

December 12, 2018 at 10:28 pm

সিল্কসিটিনিউজ ডেস্ক:

ঢাকার দোহারে নির্বাচনী প্রচার মিছিল থেকে বিএনপির প্রার্থী খোন্দকার আবু আশফাককে আটকের কয়েক ঘণ্টা পর ছেড়ে দিয়েছে পুলিশ।

বুধবার বিকালে আশফাককে আটকের পর রাত ৯টার দিকে ছেড়ে দেয়া হয়।

ছেড়ে দেয়ার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন দোহার থানার ওসি সাজ্জাদ হোসেন।

তিনি জানান, নিরাপত্তার স্বার্থে আবু আশফাককে থানায় আনা হয়েছিল। পরে তাকে রাত ৯টার দিকে ছেড়ে দেয়া হয়েছে। নাশকতায় জড়িত কয়েকজনকে আটক করা হয়েছে বলেও জানান ওসি।

এদিন বিকালে দোহারের লটাখোলা করম আলী মোড়ে পুলিশের সঙ্গে বিএনপির নেতাকর্মীদের সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। এতে পুলিশসহ বিএনপির বেশ কয়েকজন নেতাকর্মী আহত হন।

পুলিশ জানায়, নির্বাচনী মিছিলে অংশ নেয়া নেতাকর্মীদের মোটরসাইকেলের কাগজপত্র দেখতে চাইলে তারা উল্টো হুমকি-ধামকি দিতে থাকে। এ সময় পুলিশের পক্ষ থেকে আইনানুগ ব্যবস্থা নিতে চাইলে তারা পুলিশের ওপর ইটপাটকেল ছুঁড়ে হামলা চালায়। পরিস্থিতি সামাল দিতে পুলিশ লাঠিচার্জ করে।

একপর্যায়ে লটাখোলা করম আলীর মোড় থেকে পুলিশ বিএনপির প্রার্থী খোন্দকার আবু আশফাককে আটক করে থানায় নিয়ে যায়। এ সময় দোহার উপজেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক নজরুল ইসলাম মেছেরসহ আরও বেশ কয়েকজন নেতাকর্মীকে আটক করে পুলিশ।

বিএনপির নেতাকর্মীদের দাবি, অন্তত ৩০/৩৫ জন নেতাকর্মীকে আটক করা হয়েছে।

এদিকে দোহার উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান উপজেলা চেয়ারম্যান আলমগীর হোসেন সাংবাদিকদের জানান, ‘নৌকার প্রার্থীর পক্ষে কাজ করায় বিএনপির কর্মীরা আমাদের দুই কর্মীর মোটরসাইকেল পুড়িয়ে দিয়েছে’।

দোহার থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) সাজ্জাদ হোসেন সাংবাদিকদের জানান, বিএনপির নেতাকর্মীরা পুলিশকে লক্ষ্য করে ইট-পাটকেল ছুঁড়েছে। এ বিষয়ে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য বিএনপির প্রার্থী আবু আশফাককে থানায় আনা হয়।

প্রসঙ্গত, আবু আশফাকের বিরুদ্ধে বিস্ফোরক আইনে বেশ কয়েকটি মামলা তদন্তাধীন রয়েছে।

Print