‘শাহরিন বিমানের সামনের দিকে ছিল বলে বেঁচে গেছে’

March 15, 2018 at 10:31 pm

সিল্কসিটিনিউজ ডেস্ক:
নেপালে ইউএস-বাংলার বিমান বিধ্বস্তের ঘটনায় আহত শাহরিন আহমেদকে আজ বৃহস্পতিবার দেশে এনে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের বার্ন ইউনিটে ভর্তি করা হয়েছে।

আজ বিকালে ঢাকা মেডিক্যালে ভর্তির পর তার ভাই সরফরাজ আহমেদ সাংবাদিকদের বলেন, শাহরিন বিমানের সামনের দিকে ছিল।

সেখানে ছিল বলে বেঁচে গেছে। নেপালি সেনা সদস্যরা তাকে টেনে বের করেছে। তা না হলে হয়ত সে বের হতে পারত না।

সরফরাজ বলেন, ওখানকার চিকিৎসকরা বলেছেন, তার একটা মাইনর অপারেশন লাগতে পারে। সেজন্য তাকে তারা রাখতে চেয়েছিলেন। ওখানে থাকলে ইনফেকশনও হতে পারত। প্রয়োজন হলে অপারেশনটি এদেশেও করা সম্ভব বলে তাকে বাংলাদেশে নিয়ে এসেছি। তার শারীরিক অবস্থা ভালো। তবে পায়ে একটা ফ্রাকচার আছে।

ঢাকা মেডিক্যালের বার্ন ইউনিটের সমন্বয়ক সামন্ত লাল সেন বলেন, শাহরিন আহমেদের শারীরিক অবস্থা ভালো আছে, স্থিতিশীল রয়েছে। তার শরীরের বার্নের পাশাপাশি ফ্র্যাকচার রয়েছে। শরীরের ৫ শতাংশে ডিপ বার্ন রয়েছে। পায়ে ফ্র্যাকচার রয়েছে। তার কিছু পরীক্ষা-নিরীক্ষা করা হবে। তবে সব কিছু মিলিয়ে ভালো আছেন।

Print