সাপাহারে প্রধান শিক্ষকের বিরুদ্ধে মানববন্ধন

সাপাহার (নওগাঁ) প্রতিনিধি:

নওগাঁর সাপাহার উপজেলার আাইহাই উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষকের বিরুদ্ধে মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়েছে। সোমবার বেলা ১১টায় বিদ্যালয় গেটের সামনে মানববন্ধনে অংশনেন বিদ্যালয়ের প্রাক্তন ছাত্র, এলাকার অভিভাবক ও সচেতনমহল। প্রধান শিক্ষকের বিরুদ্ধে দূর্নীতি, স্বেচ্ছাচারিতা, ল্যাপটপ চুরির বিষয়টি ধামাচাপা ও পক্ষপাত মূলক আচারণের বিরুদ্ধে এ মানববন্ধন।

মানব বন্ধনে আাইহাই গ্রামের অভিভাবক সিরাজুল ইসলাম, স্কুল ম্যানেজিং কমিটির সদস্য আবুল কালাম আজাদ ও রুবেল হোসেন জানান, বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষকের বিরুদ্ধে দূর্নীতি, স্বেচ্ছাচারিতা ও ল্যাপটব চুরির বিষয়টি ধামাচাপা ও পক্ষপাতিত্ব করায় আমরা তার বিরুদ্ধে এ মানববন্ধন করেছি।

তারা আরোও জানান, গত ২৫ এপ্রিল সন্ধায় বিদ্যালয় থেকে ল্যাপটব চুরির অভিযোগ ওঠে। বিষয়টি জানাজানি হলে বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মো: আব্দুস ছালেক বিদ্যালযের নাইটগার্ড সেলিম রেজা সহ আরোও অনেকের নামে থানায় অভিযোগ দায়ের করেন। কিন্তু ল্যাপটপটি হারিয়ে যাওয়ার ১৮দিন পর রহস্যজনক ভাবে গত ১৩মে শুক্রবার বিদ্যালয়ের একটি পরিত্যাক্ত ঘর থেকে প্রধান শিক্ষক ও সহকারি শিক্ষক মিলে ওই পরিত্যাক্ত ঘরের তালা খুলে ল্যাপটবটি উদ্ধার করেন। এটা একটা রহস্যজনক ঘটনা। মানব বন্ধনে বক্তারা প্রধান শিক্ষকের বিরুদ্ধে দূর্নীতি, স্বেচ্ছাচারিতা, ল্যাপটপ চুরির বিষয়টি ধামাচাপা ও পক্ষপাত মূলক আচারণের বিষয়ে অবিলম্বে তদন্ত করে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহনের দাবি জানান প্রশাসনের কাছে।

বিষয়টি নিয়ে কথা বলার জন্য আাইহাই উ”চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মো: আব্দুস ছালেক এর সাথে দেখা করতে গেলে বিদ্যালয়ে তাকে পাওয়া যায়নি, পরে তার ফোনে একাধিক বার কল করা হলেও ফোনটি রিসিভ করেননি।

এবিষয়ে সাপাহার থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) তারেকুর রহমান সরকারের সাথে কথা হলে তিনি জানান, বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক একটি অভিযোগ দায়ের করেন এবং বিষয়টি তদন্তাধীন রয়েছে।

এস/আই