লালপুরে শিক্ষকের বাসায় চুরি, মালামালসহ গ্রেফতার ৪

নিউজ ডেস্ক

 

লালপুর প্রতিনিধি:
নাটোরের লালপুর উপজেলার নর্থ বেঙ্গল সুগার মিল হাইস্কুল শিক্ষকের বাসায় স্বর্ণালংকারসহ সাড়ে ৪ লক্ষাধিক টাকার মালামাল চুরির ঘটনায় চুরিকৃত মালামালসহ ৪জন কে গ্রেফতার করেছে লালপুর থানা পুলিশ। পরে তাদের করে আদালতে প্রেরণ করা হয়।

লালপুর থানা সূত্রে জানা যায়, লালপুর উপজেলার নর্থ বেঙ্গল সুগার মিল হাইস্কুলের বায়োলোজির শিক্ষক বিপুল কুমার প্রামানিক করোনা ভাইলাসের কারণে প্রতিষ্ঠান ছুটি থাকায় সপরিবারে গত ১৭ মার্চ নর্থ বেঙ্গল সুগার মিল চত্ত্বরের বাসা থেকে নওগাঁ সদরের হাট নওগাঁ দক্ষিন কালীপাড়ার নিজ বাড়ীতে যান। এর মধ্যে তিনি গত ৫ জুন বাসায় আসেন। তখন বাসার সব কিছু ঠিকঠাক দেখে আবার নিজ বাড়ীতে ফিরে যান। পার্শ্ববর্তী বাসার প্রতিবেশীর মাধ্যমে ২ আগষ্ট জানতে পারেন তার বাসায় চুরি হয়েছে। এ সংবাদের ভিত্তিতে তিনি ৩আগষ্ট বাসায় এসে দেখেন তাঁর বাসার স্বর্ণালংকার, ল্যাপটপ, টিভি, ড্রেসিং টেবিল, ফ্যান গ্যাসের চুলাসহ নিত্য প্রয়োজনীয় মালামাল চুরি হয়ে গেছে। এঘটনায় লালপুর থানায় ৪ আগষ্ট শিক্ষক বিপুল কুমার বাদী হয়ে ৪ লক্ষ ৫৬ হাজার টাকার মালামাল চুরির মামলা দায়ের করেন।

লালপুর থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) ফজলুর রহমানের নেতৃত্বে ও মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা এসআই ফজলুল হক সহ পুলিশের একটি চৌকস দল অভিযান চালিয়ে লালপুর উপজেলার নারায়নপুর এলাকার মৃত নাসির উদ্দিনের ছেলে ইমরান (৩৫) কে আটক করে। তাকে জিঙ্গাসাবাদে তার তথ্যমতে পুলিশ অভিযান চালিয়ে মামলা দায়ের ২৪ ঘন্টার মধ্যে ১টি টেলিভিশনসহ গোপালপুর মধুবাড়ী এলাকার শ্রী রনজিত ঘোষের ছেলে বিপুল ঘোষের (৪৮) কে, ১টি মাইক্রোওভেন ১টি প্রিন্টার ও রাইসকুকারসহ নারায়নপুর এলাকার মৃত খন্দকার আ: মান্নানের ছেলে ফারুক আহম্মেদ বাচ্চু (৫৮) কে, ১৪ ভরি ওজনের ২জোড়া রুপার তোড়া ও ২টি ফ্যানসহ ব্রামনগ্রাম মধ্যপাড়ার জামাল উদ্দিনের ছেলে শফিকুল ইসলাম (৩২) কে সহ চুরিকৃত মালামাল ক্রয়ের ঘটনায় পুলিশ তাদের ৩জন কে গ্রেফতার করে। উদ্ধারকৃত মালামাল শিক্ষক বিপুল কুমার নিজের বলে শনাক্ত করেন। লালপুর থানা পুলিশ ৫ আগষ্ট গ্রেফতাকৃত ৪জনকে আদালতে প্রেরণ করেন।

এঘটনায় নর্থ বেঙ্গল সুগার মিলস্ হাইস্কুলের প্রধান শিক্ষক মো. গওছুল আজম জানান, করোনা ভাইরাসের কারনে স্কুল বন্ধ থাকায় সহকারী শিক্ষক (বায়োলজী) বিপুল কুমার দীর্ঘদিন সপরিবারে নিজ গ্রামের বাড়ীতে ছিলেন। এর মধ্যে চুরির ঘটনা ঘটে। ঈদের পরের দিন চুরির বিষয়টি জানা গেলে তাঁকে জানানো হলে তিনি বাসায় আসেন। চুরির ঘটনাটি খুবই দু:খজনক।

এ ব্যাপারে লালপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মো. সেলিম রেজা জানান, এঘটনায় লালপুর থানায় মামলা হয়েছে। চুরিকৃত মালামাল উদ্ধারসহ ৪জন কে গ্রেফতার করে আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে। বাঁকি মালামাল উদ্ধারের চেষ্টা অব্যাহত রয়েছে।

স/অ

শর্টলিংকঃ

প্রিয় পাঠক, স্বভাবতই আপনি নানান ঘটনার সাক্ষী। শেয়ার করুন আমাদের। ঘটনার বিবরণ, ছবি, ভিডিও আমাদের ইমেলে পাঠিয়ে দিন, [email protected] ঠিকানায়। অথবা যুক্ত হতে পারেন @silkcitynews.com আমাদের ফেসবুক পেজে। কোন এলাকা, কোন দিন, কোন সময়ের ঘটনা তা জানাতে ভুলবেন না। আপনার নাম এবং ফোন নম্বর অবশ্যই দেবেন। আপনার পাঠানো খবরটি বিবেচিত হলে তা প্রকাশ করা হবে আমাদের ওয়েবসাইটে।