রাজশাহী বিভাগের সর্বোচ্চ করোনা আক্রান্ত জেলা জয়পুরহাট

নিউজ ডেস্ক
  • 72
    Shares

নিজস্ব প্রতিবেদক, জয়পুরহাট:
জয়পুরহাটে গত ২৪ ঘন্টায় আবারও নতুন করে ১৩ জনের শরীরে করোনা শনাক্ত হয়েছে। এনিয়ে জয়পুরহাট জেলায় করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ৮৬ জনের দাঁড়িয়েছে।

বৃহস্পতিবার নতুন ১৩ জন শনাক্তের মধ্যে জয়পুরহাট সদর উপজেলায় ৬ জন, আক্কেলপুর উপজেলায় ৫ জন, পাঁচবিবি উপজেলায় ১ জন ও ক্ষেতলাল উপজেলায় ১ জন। ফলে রাজশাহী বিভাগের মধ্যে সর্বোচ্চ করোনা আক্রান্তের সংখ্যা হলো এই জেলাতে। এদিকে আইসোলেশন থেকে ২৪ জন করোনা আক্রান্ত রোগী করোনাকে জয় করে সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন।

বৃহস্পতিবার রাতে ঢাকার আইইডিসিআর থেকে পাঠানো রিপোর্টে জয়পুরহাটের ৩৩০ জনের নমুনা পরীক্ষার মধ্যে ৩১৭ জনের নমুনা পরীক্ষায় নেগেটিভ আসলেও ১৩ জনের শরীরে করোনা ভাইরাস শনাক্ত হয়েছে বলে নিশ্চিত করেছেন সিভিল সার্জন ডা: সেলিম মিঞা।

জেলা স্বাস্থ্য বিভাগের দেওয়া তথ্যনুযায়ী করোনা আক্রান্তরা হলেন, সদর উপজেলার পৌর এলাকার তাজুর মোড়ের ৯ বছরের শিশু, পৌর এলাকার বুলুপাড়া এলাকার ৩৮ বছরের পুরুষ ও ৩০ বছরের যুবক, খঞ্জনপুর পূর্বপাড়ার এলাকার ৫০ বছরের পুরুষ, রাঘবপুর গ্রামের ২৩ বছরের যুবক, পালী গ্রামের ২৫ বছরের যুবক, আক্কেলপুর উপজেলার কোলা গ্রামের ৬৫ বছরের বৃদ্ধ ও বৃদ্ধা, কানুপুর গ্রামের ২০ বছরের তরুনী ও ২৫ বছরের যুবক, মাতাপুর গ্রামের ৩১ বছরের যুবক, ক্ষেতলাল উপজেলার দেওগ্রাম গ্রামের ১৮ বছরের তরুণ, পাঁচবিবি উপজেলার বদুইল গ্রামের ১৯ বছরের যুবতী।

জয়পুরহাট সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মিল্টন চন্দ্র রায় বলেন, জয়পুরহাট সদরের আক্রান্তদের বাড়ি লকডাউন করা হয়েছে।

জয়পুরহাট সিভিল সার্জন ডাঃ সেলিম মিঞা জানান, নতুন শনাক্ত হওয়া ব্যক্তিদের গোপনীনাথপুর ইন্সটিটিউট অব হেলথ টেকনোলজির (সেফ অতিথিশালা) আইসোলেশনে নেওয়ার প্রস্তুতি চলছে। আক্রান্তরা করোনা রোগীর সংস্পর্শ ছাড়াও ঢাকা,নারায়নগঞ্জ ও গাজীপুর থেকে নিজ বাড়িতে এসেছিল, হোম কোয়ারেন্টিনে থাকা অবস্থায় নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষার জন্য ঢাকার আইইডিসিআর এতে পাঠানো হয়েছিল।

এতে আতঙ্কিত হওয়ার কিছু নেই। জেলার প্রথম করোনা আক্রান্ত দুই ব্যক্তিসহ ইতিমধ্যে ২৪ জন রোগী করোনাকে জয় করে সুস্থ হয়ে আইসোলেশন থেকে বাড়িতে ফিরেছেন।

স/অ

আরো পড়ুন …

রাজশাহী বিভাগে একদিনে করোনা পজিটিভ ৫২ থেকে ৯৬, হটস্পট জয়পুরহাট

শর্টলিংকঃ

প্রিয় পাঠক, স্বভাবতই আপনি নানান ঘটনার সাক্ষী। শেয়ার করুন আমাদের। ঘটনার বিবরণ, ছবি, ভিডিও আমাদের ইমেলে পাঠিয়ে দিন, [email protected] ঠিকানায়। অথবা যুক্ত হতে পারেন @silkcitynews.com আমাদের ফেসবুক পেজে। কোন এলাকা, কোন দিন, কোন সময়ের ঘটনা তা জানাতে ভুলবেন না। আপনার নাম এবং ফোন নম্বর অবশ্যই দেবেন। আপনার পাঠানো খবরটি বিবেচিত হলে তা প্রকাশ করা হবে আমাদের ওয়েবসাইটে।