বেতন কমালে রাজশাহীতে ফুডপান্ডার রাইডাররা খাবার পৌঁছে দেবে না

নিউজ ডেস্ক


নিজস্ব প্রতিবেদক :
‘জীবন বাজি রেখে কাজ করে যাওয়া ডেলিভারি ম্যানরাই ফুডপান্ডার এগিয়ে যাওয়ার সাহস যোগায়। তাদের লড়াইয়ের কারণে কঠিন দিনে আমরা সবাই কিছুটা হলেও ভালো আছি। আমাদের নিরাপদে রাখার জন্য এই সাহসী মানুষদের জানাই আন্তরিক শ্রদ্ধা’। মনভোলানো এমন চটকদার বিজ্ঞাপন দিয়েই কর্মীদের ওপর দায় সারছে ‘ফুডপান্ডা’ এর কর্তৃপক্ষ। এমনটাই অভিযোগ প্রতিষ্ঠানটির রাজশাহীতে কাজ করা রাইডারদের।

অনলাইনে অর্ডার নিয়ে বাড়ি বাড়ি খাবার পৌছে দেয়ার এ্যাপ ভিত্তিক প্রতিষ্ঠান ফুডপান্ডা। অর্ডার অনুসারে বাড়ি বাড়ি খাবার পৌছে দিতে প্রতিষ্ঠানটির সাথে কাজ করছে রাজশাহীর প্রায় ১০০ জন তরুণ রাইডার।

তবে বেতন কমানো প্রতিবাদসহ ৫ দফা দাবিতে কর্মবিরতি শুরু করেছে ফুডপান্ডার রাজশাহীর এই রাইডাররা।

এদিকে রবিবার (৫জুলাই) নগরীর জিরো পয়েন্টে বেলা ১২ টার দিকে ফুডপান্ডার সিনিয়র রাইডার জাহিদুল ইসলাম কনি, লিটন হাসান ও জাহাঙ্গীর পলাশের নেতৃত্বে মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়। মানববন্ধনে রাইডাররা জানান, করোনাভাইরাস মহামারিতে যখন মানুষ ভয়ে আতংকে ঘর থেকে বের হতে পারছে না ঠিক সেই সময়ে জীবনের ঝুঁকি নিয়ে সকল শ্রেণীপেশার মানুষের ঘরে ঘরে খাবার পৌঁছে দিচ্ছে সাহসী রাইডাররা। এ সাহসী রাইডারদের জন্য কোম্পানি কোনো প্রণোদনা দেয় নাই তারপরেও বেতন কমানোর সিদ্ধান্ত নেওয়ায় বাধ্য হয়ে এ কর্মসূচী ঘোষণা করা হয়। এপর্যন্ত প্রতিষ্ঠানটি তাদের ৩দফা বেতন কমিয়েছে। রাইডাররা প্রতিষ্ঠানটির প্রতিনিধিদের সাধে কথা বলতে গেলে তারা ফোন ধরছেনা, পালিয়ে বেড়াচ্ছে।

রাইডাররা কর্তৃপক্ষের নিকট অনুরোধ করে জানিয়েছেন অবিলম্বে বেতন কাঠামোসহ ৫ দফা দাবি মেনে নিতে হবে। দাবি না মানা পর্যন্ত  কর্মবিরতি অব্যাহত থাকবে বলেও জানান রাইডাররা।

তবে ফুডপান্ডার রাজশাহী সিটির ম্যানেজার রিফাত ও এরিয়া ম্যানেজার ইয়াসিন ফোন রিসিভ না করায় এ বিষয়ে ফুডপান্ডা কর্তৃপক্ষের কোন বক্তব্য নেয়া সম্ভব হয়নি।

তবে ফুড পান্ডার বাংলাদেশের মিডিয়া সেল থেকে পাঠানো এক বিবৃতিতে জানানো হয়, রাইডারদের জন্য প্রণীত নতুন সংশোধিত বেতন কাঠামোতে অধিক কার্যকরভাবে ডেলিভারি সম্পন্ন করার জন্য রাইডারদের পুরষ্কৃত করা হয়। আমাদের প্ল্যাটফর্মে বেশি কাজের জন্য বেশি পারিশ্রমিক প্রদানের লক্ষ্যে আমাদের পার্টনার রাইডারদের সাথে গভীর আলোচনা-পর্যালোচনার ভিত্তিতে নতুন এই কৌশলটি বাস্তবায়ন করা হয়েছে।

স/রা

শর্টলিংকঃ

প্রিয় পাঠক, স্বভাবতই আপনি নানান ঘটনার সাক্ষী। শেয়ার করুন আমাদের। ঘটনার বিবরণ, ছবি, ভিডিও আমাদের ইমেলে পাঠিয়ে দিন, [email protected] ঠিকানায়। অথবা যুক্ত হতে পারেন @silkcitynews.com আমাদের ফেসবুক পেজে। কোন এলাকা, কোন দিন, কোন সময়ের ঘটনা তা জানাতে ভুলবেন না। আপনার নাম এবং ফোন নম্বর অবশ্যই দেবেন। আপনার পাঠানো খবরটি বিবেচিত হলে তা প্রকাশ করা হবে আমাদের ওয়েবসাইটে।