পিলখানায় বিজিবি-বিএসএফের আনুষ্ঠানিক সম্মেলন শুরু

ঢাকায় বিজিবি-বিএসএফের ডিজি পর্যায়ের সীমান্ত সম্মেলনের আনুষ্ঠানিক বৈঠক আজ বৃহস্পতিবার সকালে পিলখানা বিজিবি সদর দফতরের সম্মেলন কক্ষে শুরু হয়েছে। চার দিনব্যাপী সম্মেলনের আনুষ্ঠানিক বৈঠক সকাল ১০ টা ৪৫ মিনিটে শুরু হয়েছে।

সম্মেলনে যোগদানের জন্য ভারতীয় বর্ডার সিকিউরিটি ফোর্স (বিএসএফ) মহাপরিচালক রাকেশ আস্থানার নেতৃত্বে ৬ সদস্যের প্রতিনিধিদল বুধবার পিলখানা বিজিবি সদর দফতরে এসে পৌছেছেন।

বিজিবি ও বিএসএফ প্রধানের মধ্যে আজ শুরু হতে যাওয়া বৈঠকে সীমান্ত হত্যা শূন্যের কোটায় নামিয়ে আনার বিষয়টি প্রাধান্য পাবে। এছাড়া অস্ত্র ও মাদক পাচার বন্ধের বিষয়টিও প্রাধান্য পাবে।-খবর বাসসের

বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি) একজন কর্মকর্তা বলেন, সীমান্ত হত্যা আমাদের জন্য গুরুত্বপূর্ণ বিষয়। এ বছর আগস্ট পর্যন্ত বাংলাদেশ-ভারত সীমান্তে ৩৩ বাংলাদেশি নিহত হয়েছেন। এছাড়াও বৈঠকে অবৈধ অস্ত্র, মাদক এবং মানব পাচার বন্ধের ব্যাপারেও আলোচনা হবে। উভয় দেশের সীমান্ত ব্যবস্থাপনা আরও উন্নয়নের জন্য বৈঠকে আলোচনা হবে।

বিজিবির অপারেশন ডিরেক্টর লেফটেন্যান্ট কর্নেল ফয়জুর রহমান বলেন, বৈঠকে সীমান্ত হত্যা বন্ধের বিষয়টি প্রাধান্য পাবে।

তিনি বলেন, বৈঠকে উভয় দেশের পারস্পরিক স্বার্থের পাশাপাশি দুই সীমান্ত বাহিনীর মধ্যে সম্পর্ক আরও উন্নয়নের উপায় নিয়ে আলোচনা করবে।

নয়াদিল্লী থেকে প্রাপ্ত প্রতিবেদনে দেখা গেছে, বিএসএফের পক্ষ হতে আলোচনায় গবাদি পশুপাচার, মুদ্রা ও মানবপাচার বিষয়ে আলোচনা হতে পারে।

এদিকে বিজিবির এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয, আগামী ১৯ সেপ্টেম্বর সকাল সাড়ে ৮ টার দিকে সম্মেলনের যৌথ আলোচনার দলিল স্বাক্ষরের মধ্য দিয়ে সীমান্ত সম্মেলন শেষ হওয়ার কথা রয়েছে।

সম্মেলন শেষে বিএসএফ প্রতিনিধিদল ঢাকা ত্যাগ করবেন বলে বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়।

সম্মেলনে বিজিবি মহাপরিচালক মেজর জেনারেল মো. সাফিনুল ইসলামের নেতৃত্বে ১৩ সদস্যের বাংলাদেশ প্রতিনিধিদল অংশ নেবেন।

বাংলাদেশ প্রতিনিধিদলে বিজিবির অতিরিক্ত মহাপরিচালকবৃন্দ ও বিজিবি সদর দফতরের সংশ্লিষ্ট স্টাফ অফিসারবৃন্দ ছাড়াও প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়, স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়, পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়, যৌথ নদী কমিশন এবং ভূমি রেকর্ড ও জরিপ অধিদফতরের সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারা অংশগ্রহণ করবেন।

বিএসএফ মহাপরিচালক রাকেশ আস্থানার নেতৃত্বে ৬ সদস্যের ভারতের প্রতিনিধিদল সম্মেলনে অংশগ্রহণ করেছেন। ভারতীয় প্রতিনিধিদলে বিএসএফ সদর দপ্তরের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা এবং ভারতের স্বরাষ্ট্র ও পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তারা অন্তর্ভুক্ত রয়েছেন।

এদিকে বুধবার বিজিবির হেলিকপ্টার যোগে বিএসএফ মহাপরিচালক রাকেশ আস্থানা ঢাকার তেজগাঁও পুরাতন বিমানবন্দরে পৌঁছালে বিজিবি ডিজি বিএসএফ ডিজিকে অভ্যর্থনা ও ফুল দিয়ে বরণ করে নেন এবং সেখান থেকে তাকে সঙ্গে নিয়ে পিলখানা বিজিবি সদর দফতরে আসেন।

এর আগে বিএসএফ মহাপরিচালকসহ ভারতীয় প্রতিনিধি দল সড়ক পথে আখাউড়া আইসিপি দিয়ে বাংলাদেশে প্রবেশ করে সুলতানপুর ব্যাটালিয়নে যান।

পরে প্রতিনিধিদল সুলতানপুর ব্যাটালিয়ন থেকে বিজিবির হেলিকপ্টার যোগে ঢাকার তেজগাঁও পুরাতন বিমানবন্দরে পৌছেন।

এর আগে বুধবার দুপুর ১টার দিকে ভারতীয় প্রতিনিধি দল সড়ক পথে আখাউড়া আইসিপি দিয়ে বাংলাদেশে প্রবেশ করলে তাদেরকে বিজিবি কর্মকর্তারা অভ্যর্থনা জানান।

 

সূত্রঃ যুগান্তর

শর্টলিংকঃ

প্রিয় পাঠক, স্বভাবতই আপনি নানান ঘটনার সাক্ষী। শেয়ার করুন আমাদের। ঘটনার বিবরণ, ছবি, ভিডিও আমাদের ইমেলে পাঠিয়ে দিন, [email protected] ঠিকানায়। অথবা যুক্ত হতে পারেন @silkcitynews.com আমাদের ফেসবুক পেজে। কোন এলাকা, কোন দিন, কোন সময়ের ঘটনা তা জানাতে ভুলবেন না। আপনার নাম এবং ফোন নম্বর অবশ্যই দেবেন। আপনার পাঠানো খবরটি বিবেচিত হলে তা প্রকাশ করা হবে আমাদের ওয়েবসাইটে।