নাটোরে চিকিৎসা করাতে এসে উপসর্গ নিয়ে মেয়ের বাড়িতে মায়ের মৃত্যু

নিউজ ডেস্ক

নাটোরের বাগাতিপাড়া উপজেলার পাকা ইউনিয়নে জ্বর ও বুকব্যথা নিয়ে এক নারীর (৫৩) মৃত্যু হয়েছে। আজ বুধবার সকালে মেয়ের বাড়িতে তাঁর মৃত্যু হয়। তিনি চিকিৎসা করানোর জন্য ঈদের আগে মেয়ের বাড়িতে এসেছিলেন বলে জানা গেছে।

করোনাভাইরাস সংক্রমণের আশঙ্কায় বাড়িটি লকডাউন করা হয়েছে। স্থানীয় প্রশাসন ওই নারীর মরদেহ থেকে নমুনা সংগ্রহ করেছে। ওই নারীর সংস্পর্শে আসা অন্যদেরও নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে।

পাকা ইউনিয়ন পরিষদের ২ নম্বর ওয়ার্ডের সদস্য আবদুল খালেক মারা যাওয়া নারীর পরিবারের বরাত দিয়ে জানান, ওই নারী ঈদের আগে নিজ গ্রাম থেকে এই গ্রামে মেয়ের বাড়িতে এসেছিলেন। মেয়ের বাড়িতে থেকে তিনি রাজশাহীর পুঠিয়ার একজন চিকিৎসকের কাছে চিকিৎসা নিচ্ছিলেন। তাঁর টাইফয়েড ও হৃদরোগের সমস্যা ছিল। আজ সকালে অসুস্থতা বেড়ে গিয়ে তাঁর মৃত্যু হয়। বিষয়টি উপজেলা প্রশাসন ও পুলিশকে জানানো হয়েছে।

ওই নারীর স্বামী বলেন, ‘আমরা স্বাভাবিক নিয়মে দাফনের উদ্যোগ নিয়েছিলাম। কিন্তু স্থানীয় প্রশাসন নিষেধ করায় তা করা হয়নি। সবার নমুনা সংগ্রহ করার কথা জানানো হয় আমাদের।’

বাগাতিপাড়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) নাজমুল হক জানান, উপজেলা করোনাভাইরাস প্রতিরোধ কমিটির সিদ্ধান্ত অনুসারে ওই নারী ও তাঁর সংস্পর্শে আসা ব্যক্তিদের নমুনা সংগ্রহের পর স্বাস্থ্যবিধি মেনে দাফনের সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।

 

শর্টলিংকঃ

প্রিয় পাঠক, স্বভাবতই আপনি নানান ঘটনার সাক্ষী। শেয়ার করুন আমাদের। ঘটনার বিবরণ, ছবি, ভিডিও আমাদের ইমেলে পাঠিয়ে দিন, [email protected] ঠিকানায়। অথবা যুক্ত হতে পারেন @silkcitynews.com আমাদের ফেসবুক পেজে। কোন এলাকা, কোন দিন, কোন সময়ের ঘটনা তা জানাতে ভুলবেন না। আপনার নাম এবং ফোন নম্বর অবশ্যই দেবেন। আপনার পাঠানো খবরটি বিবেচিত হলে তা প্রকাশ করা হবে আমাদের ওয়েবসাইটে।