ঢাবিতে ইসরাইলি প্রধানমন্ত্রীর কুশপুত্তলিকা দাহ

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে ইসরাইলি প্রধানমন্ত্রী বেনিইয়ামিন  নেতানিয়াহুর কুশপুত্তলিকা দাহ করা হয়েছে। রোববার বিশ্ববিদ্যালয়ের রাজু ভাস্কর্যের পাদদেশে আয়োজিত এক মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সমাবেশে বাংলাদেশ মুক্তিযুদ্ধ মঞ্চ এই কুশপুত্তলিকা দাহ করে।

ফিলিস্তিনের নিরীহ মানুষের ওপর হামলা বন্ধের দাবিতে আয়োজিত মানববন্ধনে বাংলাদেশ মুক্তিযুদ্ধ মঞ্চ, কেন্দ্রীয় কমিটির সাধারণ সম্পাদক মো. আল মামুনের সঞ্চালনায় ও সংগঠনের সভাপতি আমিনুল ইসলাম বুলবুলের সভাপতিত্বে  উপস্থিত ছিলেন বিশিষ্ট ভাস্কর শিল্পী রাশা, সংগঠনের ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় শাখার সভাপতি সনেট মাহমুদসহ প্রমুখ।

মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সমাবেশের বক্তব্যে আমিনুল ইসলাম বুলবুল বলেন, ফিলিস্তিনের নিরীহ মানুষের ওপর ইসরাইলি বাহিনীর বর্বরোচিত হামলা অবিলম্বে বন্ধ করতে হবে। ফিলিস্তিনের ওপর হামলাকারী ইসরাইলি বাহিনীর নগ্ন হামলা শতশত ফিলিস্তিন নাগরিকের জীবন কেড়ে নিয়েছে। মুসলিমদের পবিত্র মসজিদ আলআকসায় হামলার মাধ্যমে  ইসরাইলি বাহিনী অত্যন্ত ঘৃণিত অপরাধ করেছে। আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়কে ফিলিস্তিনি নাগরিকদের পাশে দাঁড়ানোর জন্য আমরা আহবান জানাচ্ছি।

মো. আল মামুন বলেন, ফিলিস্তিনের নিরীহ মানুষের ওপর ইসরালের সামরিক বাহিনী যেভাবে নগ্ন হামলা করেছে আমরা খুবই উদ্বিগ্ন। তারা প্রকাশে মানবতাবিরোধী অপরাধে লিপ্ত হয়েছে। এমন হীন কাজ আমরা কখনোই সমর্থন করি না। সম্প্রতি প্রায় ১৫০ জন ফিলিস্তিনি নাগরিককে নির্মমভাবে হত্যা করা হয়েছে যা আন্তর্জাতিক মানবাধিকার আইনের সুস্পষ্ট লঙ্ঘন। শতশত ফিলিস্তিনি নারী-শিশু আহত হয়ে হাসপাতালে মৃত্যুর সঙ্গে পাঞ্জা লড়ছেন। ওআইসি ও আরব লীগের নীরবতা আমাদেরকে ব্যথিত করেছে। মানবতাবিরোধী অপরাধে অভিযুক্ত ইসরাইলের প্রধানমন্ত্রী বেনিয়ামিন নেতানিয়াহুকে গ্রেফতার করে আন্তর্জাতিক অপরাধ আদালতে বিচারের দাবি জানাচ্ছে বাংলাদেশ মুক্তিযুদ্ধ মঞ্চ। পাশাপাশি ফিলিস্তিনি রাষ্ট্রের পূর্ণাঙ্গ স্বাধীনতা করতে হবে। ফিলিস্তিনি নাগরিকদের স্বাধীনতা আন্দোলনের প্রতি আমরা পূর্ণাঙ্গ সমর্থন ও সংহতি জানাচ্ছি। ইসরাইলি বাহিনীর সন্ত্রাসের বিরুদ্ধে বিশ্ব জনমত গড়ে তুলতে হবে। জাতিসংঘসহ বিশ্ব সম্প্রদায়কে এই নৃশংস হামলার বিরুদ্ধে সোচ্চার ভূমিকা পালন করার আহ্বান জানাচ্ছি। অন্যথায় বাংলাদেশ মুক্তিযুদ্ধ মঞ্চ আরও কঠোর কর্মসূচি ঘোষণা করবে।

শর্টলিংকঃ

প্রিয় পাঠক, স্বভাবতই আপনি নানান ঘটনার সাক্ষী। শেয়ার করুন আমাদের। ঘটনার বিবরণ, ছবি, ভিডিও আমাদের ইমেলে পাঠিয়ে দিন, silkcitynews@gmail.com ঠিকানায়। অথবা যুক্ত হতে পারেন @silkcitynews.com আমাদের ফেসবুক পেজে। কোন এলাকা, কোন দিন, কোন সময়ের ঘটনা তা জানাতে ভুলবেন না। আপনার নাম এবং ফোন নম্বর অবশ্যই দেবেন। আপনার পাঠানো খবরটি বিবেচিত হলে তা প্রকাশ করা হবে আমাদের ওয়েবসাইটে।