ডিফেন্ডার হয়েও গোলের রেকর্ড রামোসের

নিউজ ডেস্ক

সার্জিও রামোস, স্পেন ফুটবল দলের বর্তমান অধিনায়ক। খেলেন সেন্ট্রাল ডিফেন্ডার হিসেবে। রিয়াল মাদ্রিদেরও অধিনায়ক এবং সেন্ট্রাল ডিফেন্ডার। কিন্তু ডিফেন্ডার হলেও তিনি নিজে প্রতিপক্ষের ডিফেন্ডারদের জন্য এক মূর্তিমান আতঙ্ক। যে কোনো সময় আততায়ী হিসেবে হাজির হয়ে যেতে পারেন তিনি, আচমকা জালে জড়িয়ে দিতে পারেন বল।

আচ্ছা! একজন ডিফেন্ডারের নামের পাশে গোলের সংখ্যা কত হতে পারে? এমনও অনেক ডিফেন্ডার আছেন, যারা সারাজীবন প্রতিপক্ষের স্ট্রাইকারদের গোল ঠেকিয়েই গেছেন শুধু, নিজের নামের পাশে একটি গোলও যোগ করতে পারেননি।

কিন্তু সার্জিও রামোস একজন ডিফেন্ডার হয়েও রীতিমত গোলের রেকর্ড সৃষ্টি করে ফেলেছেন। তবে তার গোলের রেকর্ডটি ডিফেন্ডারদের মধ্যে। রোববার রাতে ইউক্রেনের বিপক্ষে জোড়া গোল করেছিলেন রামোস। সেই জোড়া গোল দিয়ে ডিফেন্ডার হিসেবে আন্তর্জাতিক ফুটবলে সর্বোচ্চ গোলের রেকর্ড ভেঙে নতুন রেকর্ড গড়েছেন তিনি।

উয়েফা নেশন্স লিগে ইউক্রেনের বিপক্ষে শুরুতে, ম্যাচের ৩ মিনিটে পেনাল্টি থেকে একটি গোল করেন তিনি। এরপর ২৯ মিনিটের সময় দুর্দান্ত এক হেডে আরেকটি গোল করেন তিনি। প্রথম গোল করে আর্জেন্টিনার বিখ্যাত ডিফেন্ডার ড্যানিয়েল পাসারেলার ২২ গোলের রেকর্ড স্পর্শ করেন রামোস। এরপর ২৯ মিনিটে হেড থেকে গোল করে ছাড়িয়ে যান পাসারেলাকে। ২৩তম গোল করে সৃষ্টি করেন আন্তর্জাতিক ফুটবলে একজন ডিফেন্ডার হিসেবে সর্বোচ্চ গোল করার রেকর্ড।

আশ্চর্যজনক বিষয় হচ্ছে যে রেকর্ডটি লা রোজাদের হয়ে রামোস করেছেন, সেটি করতে তিনি খেলেছেন ১৭২টি আন্তর্জাতিক ম্যাচ। অন্যদিকে আর্জেন্টিনার হয়ে ১৯৭৮ সালে বিশ্বকাপ জেতা ডিফেন্ডার ড্যানিয়েল পাসারেলা ২২ গোল করেছেন কেবল ৭০টি ম্যাচ খেলে।

স্পেনের হয়ে আলফ্রেডো ডি স্টেফানো গোল করেছেন ২৩টি। সার্জিও রামোস এখন তার সমান্তরালে অবস্থান করছেন। তার সামনে রয়েছেন এখন এমিলিও বাট্টাগুয়েনো। তিনি আন্তর্জাতিক ফুটবলে গোল করেছেন ২৬টি।

ক্লাব ফুটবলেও রামোসের নামের পাশে বেশ কিছু গোল রয়েছে। সেভিয়া (২০০৩-২০০৬) এবং রিয়াল মাদ্রিদের (২০০৬ থেকে এখনও পর্যন্ত) হয়ে মোট ৭২৬ ম্যাচ খেলে গোল করেছেন ১০২টি।

শর্টলিংকঃ

প্রিয় পাঠক, স্বভাবতই আপনি নানান ঘটনার সাক্ষী। শেয়ার করুন আমাদের। ঘটনার বিবরণ, ছবি, ভিডিও আমাদের ইমেলে পাঠিয়ে দিন, [email protected] ঠিকানায়। অথবা যুক্ত হতে পারেন @silkcitynews.com আমাদের ফেসবুক পেজে। কোন এলাকা, কোন দিন, কোন সময়ের ঘটনা তা জানাতে ভুলবেন না। আপনার নাম এবং ফোন নম্বর অবশ্যই দেবেন। আপনার পাঠানো খবরটি বিবেচিত হলে তা প্রকাশ করা হবে আমাদের ওয়েবসাইটে।