টাকার অভাবে মা-ছেলে নিজেদের নির্বাচনী প্রচারণায়

নিউজ ডেস্ক

নিজস্ব প্রতিবেদক:

স্বপ্ন সাধারণ মানুষের সেবা করা। তাই নিজের পোষা রাজহাঁস বিক্রি করে সেই টাকা দিয়ে ভোটে দাঁড়িয়েছেন নাদিরা বেগম নামের এক নারী। তিনি রাজশাহী সিটি করপোরেশনের সংরক্ষিত -৮ আসনে (২২, ২৩ ও ২৪) নম্বর ওয়ার্ড মহিলা কাউন্সিলর প্রার্থী হিসেবে নির্বাচন করছেন।

নাদিরার কোন কর্মী লোকবল নেই। তবুও থেমে নেই সে। তার শিশু সন্তান স্বপ্নীলকে সাথে নিয়ে নেমে নির্বাচনী প্রচারণায়। কখনো সে রিক্সা ভ্যানে করে নিজেই মাইকিং করছেন, কখনো আবার পোস্টার টাঙ্গিয়ে বেড়াচ্ছেন।

ভোর হলেই নাদিরার ছোটাছুটি দলমত নির্বিশেষে সকল ভোটারদের বাড়ি বাড়ি। ভোটাররা নাদিরার পরিশ্রম দেখে আবেগ আপ্লুত হয়ে কেউ কেউ তাকে আর্থিক সহায়তাও করছেন। নাদিরার কোন টাকা নেই, কিন্তু আছে মানুষের ভালোবাসে তাকে। সে গত ১৫ বছরে তিনটি রাসিক নির্বাচনে অংশ নিয়ে। বিজয়ী প্রার্থীর কাছে সামান্য ভোটে হেরেছেন।

জানা গেছে, নগরীর ২৩ নম্বর ওয়ার্ডের বাসিন্দা মকবুল হোসেনের মেয়ে হতদরিদ্র নাদিরা বেগম। বিয়ের কয়েক বছর পরে স্বামী মারা গেছেন। এক মাত্র ছেলে শাহারিয়ার আহমেদ স্বপ্নীলকে নিয়ে নতুন ভাবে বাঁচার স্বপ্ন দেখছেন। ছেলে পড়াশনা করছে নগরীর ইসলামী গবেষণা কেন্দ্র মডেল স্কুলে নবম শ্রেণিতে।

আগামী ৩০ জুলাই রাজশাহী সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে ২২, ২৩ ও ২৪ নম্বর ওয়ার্ডের সংরক্ষিত মহিলা আসনে জীপ গাড়ী মার্কায় কাউন্সিলর পদপ্রার্থী হিসেবে হতদরিদ্র নাদিরা বেগম বিজয়ের স্বপ্ন দেখছেন। বিজয়ী হলে এলাকার উন্নয়নের প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন।

তিনি জানান, আমি নিজেই একজন গরীব মানুষ তাই টাকা পয়সা খরচ করতে পারছি না। কিন্তু সবার কাছে গিয়ে দোয়া চাইছি আমার জিপ গাড়ি মার্কায় ভোট চাচ্ছি। এলাকাবাসী আমায় পূর্ণ সমর্থণ দিয়েছেন তাই বিজয় নিয়ে আমি শতভাগ আশাবদী।

তিনি জানান, কাউন্সিলর নির্বাচিত হলে বয়স্ক পুরুষ, মহিলা এবং শিশুদের ভাতা ব্যবস্থা করবেন। বেকার সমস্যায় তরুণ তরুণীদের নিয়ে এলাকায় বিভিন্ন কর্মসংস্থানের ব্যবস্থা করবো। এর মাঝে ২২ ও ২৩ নম্বর ওয়ার্ডের নতুন ভোটরা তাকে অনেক সহযোগিতা করছেন। পরিষ্কার বিশুদ্ধ পানি পায় তার জন্য সিটি কপোরেশনে সাথে আলোচনা করে এলাকার মানুষের জন্য বিশুন্ধ পানির ব্যাবস্থা করবো।

তিনি আরো জানান, আমি নিজেই একজন গরিব মেয়ে তাই মেয়েদের সকল সমস্যা বুঝি। আর বিশেষ করে গরীব মেয়েদের সমস্যা আমি আরো ভালো ভাবে বুঝি। এজন্যে মেয়েদেরকে নিয়ে বিশেষ ভাবে অনেক উদ্যোগ গ্রাহণ করতে চাই। মহিলাদের কর্মসংস্থানের জন্য সেলাই মেশিন, কুটির শিল্প, বুটিক শিল্পের ব্যবস্থা গ্রহণ করবো। হতদরিদ্র মহিলাদের জন্য ঋণের ব্যবস্থা করবো। সিটি কপোরেশনকে জানিয়ে তাদের ঋণের ব্যবস্থা করে ক্ষুদ্র ব্যবসা করার উদ্যেগ গ্রহণ করবো।

 

স/আ

শর্টলিংকঃ

প্রিয় পাঠক, স্বভাবতই আপনি নানান ঘটনার সাক্ষী। শেয়ার করুন আমাদের। ঘটনার বিবরণ, ছবি, ভিডিও আমাদের ইমেলে পাঠিয়ে দিন, [email protected] ঠিকানায়। অথবা যুক্ত হতে পারেন @silkcitynews.com আমাদের ফেসবুক পেজে। কোন এলাকা, কোন দিন, কোন সময়ের ঘটনা তা জানাতে ভুলবেন না। আপনার নাম এবং ফোন নম্বর অবশ্যই দেবেন। আপনার পাঠানো খবরটি বিবেচিত হলে তা প্রকাশ করা হবে আমাদের ওয়েবসাইটে।

Comments are closed.