বুধবার , ৩১ মে ২০২৩ | ১লা আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
  1. অন্যান্য
  2. অপরাধ ও দুর্নীতি
  3. অর্থ ও বাণিজ্য
  4. আইন আদালত
  5. আন্তর্জাতিক
  6. কৃষি
  7. খেলা
  8. চাকরি
  9. ছবিঘর
  10. জাতীয়
  11. তথ্যপ্রযুক্তি
  12. দুর্ঘটনা
  13. ধর্ম
  14. নারী
  15. নির্বাচিত খবর

জেসমিনের মৃত্যু: মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের প্রতিবেদন ‘১৫ দিনের মধ্যে’

Paris
মে ৩১, ২০২৩ ৯:১৩ অপরাহ্ণ

কাজী কামাল হোসেন,নওগাঁ :
নওগাঁ সদরের চন্ডিপুর ইউনিয়ন ভূমি কার্যালয়ের কর্মচারী সুলতানা জেসমিনের র‌্যাব হেফাজতে মৃত্যুর ঘটনার তদন্ত শেষ করেছে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ গঠিত উচ্চপর্যায়ের তদন্তদল।
তিনদিনের তদন্তের শেষ দিন বুধবার বেলা ১২টা পর্যন্ত রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল, রাজপাড়া থানা, নওগাঁ সদর জেনারেল হাসপাতাল, সদর থানাসহ গুরুত্বপূর্ণ স্থান পরিদর্শন করেন তদন্ত দলের সদস্যরা।
গত তিনদিন সুলতানা জেসমিনের ছেলে, ভাই ও মামা, বাড়িওয়ালা, র‌্যাব সদস্য, অন্যান্য সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তা, চিকিৎসক, পুলিশ, প্রত্যক্ষদর্শীসহ ২০-২৫ জনের সঙ্গে কথা বলেছে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ গঠিত উচ্চপর্যায়ের তদন্তদল। পরিদর্শন করা হয়েছে তদন্তের স্বার্থে প্রয়োজনীয় স্থানগুলোও।
কমিটির নেতৃত্ব দিচ্ছেন মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের সচিব (সমন্বয় ও সংস্কার) মাহমুদুল হোসাইন খান। দুপুরে নওগাঁ সার্কিট হাউসে সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলেন তিনি।
এক প্রশ্নের জবাবে সচিব বলেন, “আমরা অত্যন্ত গুরুত্বের সঙ্গে তদন্ত করছি। আগামী ১৫ দিনের মধ্যে প্রতিবেদন দাখিলের চেষ্টা করব। সুলতানা জেসমিনের পরিবারের সদস্যসহ সংশ্লিষ্ট ২০-২৫ জনের সঙ্গে কথা বলেছি। তদন্তের খসড়া তথ্য-উপাত্ত নিয়ে কমিটির সদস্যরা আবার বসব। কোনো ঘাটতি পাওয়া গেলে আবারও তদন্ত করে দেখা হবে।”
২২ মার্চ সকালে অফিসে যাওয়ার পথে জেসমিনকে আটক করে র‌্যাব-৫-এর জয়পুরহাট ক্যাম্পের একটি দল। স্থানীয় সরকারের রাজশাহী বিভাগের পরিচালক মো. এনামুল হকের মৌখিক অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে তাকে নিয়েই র‌্যাব এ অভিযান চালায়।
এনামুল হকের অভিযোগ, জেসমিন ও আল আমিন নামের এক ব্যক্তি তার (এনামুল) ফেইসবুক আইডি হ্যাক করে চাকরি দেওয়ার প্রলোভন দেখাচ্ছিলেন বিভিন্নজনকে। এভাবে তারা প্রতারণা করে টাকা হাতিয়ে নিচ্ছিলেন।
আটকের পরের দিন ২৩ মার্চ সকালে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় জেসমিন মারা যান।
এ ঘটনার সুষ্ঠু তদন্তের স্বার্থে হাই কোর্টের এক আদেশের পরিপ্রেক্ষিতে গত ২২ মে উচ্চপর্যায়ের একটি কমিটি গঠন করে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ।
মাহমুদুল হোসাইন খানকে প্রধান করে এতে সদস্য হিসেবে রাখা হয়েছে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের একজন অতিরিক্ত সচিব, স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের একজন অতিরিক্ত সচিব, নওগাঁর সিনিয়র জেলা ও দায়রা জজ, মুখ্য বিচারিত হাকিম, সিভিল সার্জন, অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট এবং নওগাঁর পুলিশ সুপারের মনোনীত অতিরিক্ত পুলিশ সুপার।

সর্বশেষ - রাজশাহীর খবর