গুরুদাসপুরে হারিয়ে যাওয়া শিশু তাইবা ৮ দিন পর বড়াইগ্রামে উদ্ধার

বড়াইগ্রাম প্রতিনিধিঃ
নাটোরের গুরুদাসপুর স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে থেকে চুরি হওয়ার ৮ দিন পর শিশু তাইবাকে উদ্ধার করেছে পুলিশ। বুধবার গভীর রাতে পার্শ্ববর্তী বড়াইগ্রাম উপজেলার কালিকাপুর গ্রাম থেকে শিশুটিকে উদ্ধার করা হয়। এসময় অভিযুক্ত শাকিলাকে গ্রেফতার করে পুলিশ।
উদ্ধার হওয়া শিশু তাইবা গুরুদাসপুরের মশন্দিা মাঝপাড়া গ্রামের তফিজ ও শিমা দম্পতির তৃতীয় সন্তান।
আজ বৃহস্পতিবার সকাল ১১ টার দিকে শিশু উদ্ধার বিষয়ে নাটোর পুলিশ সুপার লিটন কুমার সাহা গুরুদাসপুর থানা চত্বরে এক প্রেস ব্রিফিং এর মাধ্যমে এসব তথ্য জনান।
উল্লেখ্য গত ২৩ ডিসেম্বর দুপুরে আড়াই মাস বয়সী শিশুটি চুরি হয়। হাসপাতালের সিসি ক্যামেরার ভিডিও ফুটেজ দেখে এক নারীকে শনাক্ত করে গুরুদাসপুর থানা পুলিশ।
প্রেস ব্রিফিংয়ে পুলিশ সুপার জানান, শিশু তাইবাকে উদ্ধারে তাৎক্ষনিকভাবে গুরুদাসপুর থানা পুলিশ, ডিএসবি, ডিবি এবং জেলার চৌকস অফিসারদের সমন্বয়ে ৪ টি স্পেশাল টিম গঠন করে অভিযান পরিচালনা শুরু করা হয়। গুরুদাসপুর স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ও গুরুদাসপুর থানার সকল সিসিটিভি ক্যামেরার ফুটেজ সংগ্রহ করে বিশ্লেষন করা হয়। সিসিটিভির ফুটেজ হতে প্রাপ্ত তথ্য ও আধুনিক প্রযুক্তির মাধ্যমে সকল তথ্য যাচাই বাছাই করে নিরলস বিরতিহীনভাবে ৮ দিন অভিযান পরিচালনা করে বৃহস্পতিবার রাত সাড়ে ১২ টার দিকে বড়াইগ্রাম থানাধীন কালিকাপুর গ্রাম হতে চুরি হওয়া শিশু তাইবাকে উদ্ধার করে পুলিশ। শিশু চুরির সাথে জড়িত শাকিলাকে গ্রেফতার করা হয়।
জানা যায়, অভিযুক্ত শাকিলার জন্মের ৮ বছর পর তার মা মারা যায়। বাবা দ্বিতীয় বিয়ে করেন। সৎ মায়ের সংসারে তার বেড়ে উঠা। তার বাবা শাকিলাকে সিংড়া থানাধীন বিলদহর গ্রামে বিয়ে দেন। সেখানে ৫ বছর সংসার জীবনে তার একটি কন্যা সন্তানের জন্ম হয়। পরবর্তীতে বড়াইগ্রামে সাইদুল ইসলাম নামে এক ট্রাক ড্রাইভারের সাথে তার বিয়ে হয়। দ্বিতীয় বিয়ের পর তার বাবা মার সাথে তার দূরত্ব তৈরী হয়। শাকিলা চিকিৎসা গ্রহনকালে গুরুদাসপুর বাসস্টান্ডে এক জনৈক এনজিও কর্মীর সহধর্মীনির সাথে তার পরিচয় হয়।
পরিচয়ের সুত্র ধরে শাকিলার গর্ভের সন্তান উক্ত এনজিও কর্মীর পরিচিত একজন নিঃসন্তান সহকর্মিকে দত্ত্বক দেয় শাকিলা। এরপর শাকিলার স্বামী সাইদুল ইসলাম শাকিলাকে তার সন্তানের জন্য বিভিন্ন ভাবে চাপ দিতে থাকে। তখন স্বামীর অগোচরে স্বামীকে বুঝ দেওয়ার জন্য গুরুদাসপুর স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে হতে তাইবাকে চুরি করে নিয়ে যায়।
তাইবাকে ফেরত পেয়ে খুশি তার মা-বাবা ও এলাকাবাসী। তারা পুলিশ ও সাংবাদিকদের ধন‌্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা জানান।

আরো পুড়ন …নাটোরে মেয়েকে একজনের কোলে রেখে গেলেন চিকিৎসকের কাছে, ফিরে দেখেন নেই

স/অ
শর্টলিংকঃ

প্রিয় পাঠক, স্বভাবতই আপনি নানান ঘটনার সাক্ষী। শেয়ার করুন আমাদের। ঘটনার বিবরণ, ছবি, ভিডিও আমাদের ইমেলে পাঠিয়ে দিন, silkcitynews@gmail.com ঠিকানায়। অথবা যুক্ত হতে পারেন @silkcitynews.com আমাদের ফেসবুক পেজে। কোন এলাকা, কোন দিন, কোন সময়ের ঘটনা তা জানাতে ভুলবেন না। আপনার নাম এবং ফোন নম্বর অবশ্যই দেবেন। আপনার পাঠানো খবরটি বিবেচিত হলে তা প্রকাশ করা হবে আমাদের ওয়েবসাইটে।