কি উপহার পেলেন নুসরাত ফারিয়া?

সিল্কসিটিনিউজ ডেস্ক:

 

বাংলাদেশি অভিনয়শিল্পী নুসরাত ফারিয়া মাজহার কণ্ঠশিল্পী হিসেবে আত্মপ্রকাশ করেছেন। ২০১৮ সালে ‘পটাকা’ এবং ২০২০ সালে ‘আমি চাই থাকতে’ শিরোনামে দুটি গানে কণ্ঠ দিয়ে আলোচনা-সমালোচনার জন্ম দেন। তবে সুর যে তাঁর কণ্ঠ ছিল তা প্রকাশ হতে বাকি থাকেনি।  সুর বাঁধতে পারেন, এবার ইউকেলেলে (যা দেখতে গিটারের মতোই) বাজানো শিখবেন বলে জানালেন নুসরাত ফারিয়া। কেননা এই ইউকেলে তিনি উপহার পেয়েছেন, এখন ফেলে রাখলে তো চলবে না।

গতকাল বৃহস্পতিবার সোশ্যাল মিডিয়া ফেসবুকে ইউকেলেলে হাতে নিয়ে একটি ছবি পোস্ট করেছেন দুই বাংলার পরিচিত মুখ নুসরাত ফারিয়া। উপহার পোয়ার বিষয়টি উল্লেখ করেই ছবির ক্যাপশন দিয়েছেন ‘গিফট তো পেলাম। কিন্তু প্লে তো করতে পারি না।’

তাহলে কী করবেন? হ্যাঁ এটা তো আর ফেলয়ে রাখা যায় না, তা শিখতেই হবে। ইউকেলেলে বাজানো শেখার কথা জানিয়ে ফারিয়া বলেন, ‘সংগীত আমার পছন্দের একটি অংশ। আর ইউকেলেলে বাজাতে পারলে বিষয়টি নিশ্চয়ই অনেক আনন্দের হবে। তাহলে গান আমি গাইতে পারবো নিজেই বাজিয়ে।’

এদিকে, দুই বছর আগে কলকাতার ‘বিবাহ অভিযান’-এ অভিনয় করেছিলেন নুসরাত ফারিয়া। জানা গেল, এই ছবিটির সিক্যুয়ালেও থাকছেন বাংলাদেশি অভিনেত্রী। ‘টাইমস অব ইন্ডিয়া’কে দেওয়া সাক্ষাৎকারে ফারিয়া নিজেই জানিয়েছেন ‘বিবাহ অভিয়ান ২’তেও থাকছেন তিনি।

সঙ্গে দিয়েছেন ওপার বাংলার আরো একটি ছবিতে অভিনয়ের খবরও, “মার্চের শেষ পর্যন্ত মুম্বাইয়ে বঙ্গবন্ধুর বায়োপিকের শুটিং করব। এরপর এপ্রিলে কলকাতায় ‘ভয়’-এর শুটিং করব। এপ্রিলের মাঝামাঝিতে শুরু হবে ‘বিবাহ অভিযান ২’।”

সাক্ষাৎকারে অভিনেত্রী কথা বলেন বঙ্গবন্ধুর বায়োপিকে অভিনয় ও শ্যাম বেনেগালের মতো পরিচালকের সঙ্গে কাজের অভিজ্ঞতা নিয়েও, ‘ছবিতে (বঙ্গবন্ধুর বায়োপিক) আমি শেখ হাসিনার চরিত্র করছি। এমন একটি সম্মানজনক প্রজেক্টে যুক্ত হতে পেরে আমি ধন্য। শ্যাম স্যারের সঙ্গে কাজের অভিজ্ঞতাও দারুণ। তিনি একেবারেই ডাউন টু আর্থ ব্যক্তিত্ব, ফাইনাল টেক নেওয়ার আগে সব সুন্দরভাবে বুঝিয়ে দেন। তাঁর সঙ্গে কাজ করে অনেক কিছু শিখতে পারছি।’

সূত্র: কালেরকন্ঠ

শর্টলিংকঃ

প্রিয় পাঠক, স্বভাবতই আপনি নানান ঘটনার সাক্ষী। শেয়ার করুন আমাদের। ঘটনার বিবরণ, ছবি, ভিডিও আমাদের ইমেলে পাঠিয়ে দিন, silkcitynews@gmail.com ঠিকানায়। অথবা যুক্ত হতে পারেন @silkcitynews.com আমাদের ফেসবুক পেজে। কোন এলাকা, কোন দিন, কোন সময়ের ঘটনা তা জানাতে ভুলবেন না। আপনার নাম এবং ফোন নম্বর অবশ্যই দেবেন। আপনার পাঠানো খবরটি বিবেচিত হলে তা প্রকাশ করা হবে আমাদের ওয়েবসাইটে।