করোনা পজিটিভ শুনেই লাপাত্তা নারী

নিউজ ডেস্ক

শেরপুরের ঝিনাইগাতীতে কোভিডে আক্রান্ত হওয়ার কথা শুনে বাড়ি থেকে পালিয়েছেন এক নারী (২৬)। তিনি উপজেলার ধানশাইল ইউনিয়নের বাসিন্দা। তাঁর স্বামীরও কোনো সন্ধান পাওয়া যাচ্ছে না।

আজ বুধবার বিকেলে উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা (ইউএইচএফপিও) মো. জসিম উদ্দিন ওই নারীর পালানোর বিষয়টি নিশ্চিত করেন।

উপজেলা স্বাস্থ্য বিভাগ সূত্রে জানা গেছে, গতকাল মঙ্গলবার রাতে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজের পরীক্ষাগার থেকে পাঠানো প্রতিবেদনে ওই নারীর করোনা পজিটিভ আসে। এরপর স্বাস্থ্য বিভাগ থেকে তাঁকে বাড়িতেই আইসোলেশনে থাকার নির্দেশনা দেওয়া হয়। কিন্তু করোনা শনাক্তের কথা শুনে বাড়িতে আইসোলেশনে না থেকে তিনি পালিয়েছেন। অনেক খোঁজাখুঁজি করেও তাঁকে পাওয়া যাচ্ছে না। আজ স্বাস্থ্য বিভাগের কর্মীরা তাঁর খোঁজ-খবর নিতে গেলে তাঁর পালানোর বিষয়টি জানা যায়।

ধানশাইল ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) চেয়ারম্যান মো. শফিকুল ইসলাম বলেন, ওই নারীকে খুঁজে পাওয়া যাচ্ছে না। এমনকি তাঁর স্বামীকেও পাওয়া যাচ্ছে না। ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য ও গ্রামপুলিশকে ওই নারীর বাড়িতে পাঠানো হয়েছে। তাঁর সন্ধানের জন্য এলাকাবাসীকেও অনুরোধ জানানো হয়েছে।

ইউএইচএফপিও জসিম উদ্দিন বলেন, করোনা শনাক্ত হয়ে এলাকা থেকে পালিয়ে যাওয়া খুবই দুঃখজনক। মানুষ নিজে নিজে সচেতন না হলে করোনাভাইরাস পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করা খুবই কঠিন। ওই নারীর পালিয়ে যাওয়ার বিষয়টি উপজেলা প্রশাসন ও পুলিশকে জানানো হয়েছে।

ঝিনাইগাতী থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মো. সারোয়ার হোসেন জানান, করোনা পজিটিভ ওই নারীকে খুঁজে বের করতে পুলিশ কাজ করছে।

শর্টলিংকঃ

প্রিয় পাঠক, স্বভাবতই আপনি নানান ঘটনার সাক্ষী। শেয়ার করুন আমাদের। ঘটনার বিবরণ, ছবি, ভিডিও আমাদের ইমেলে পাঠিয়ে দিন, [email protected] ঠিকানায়। অথবা যুক্ত হতে পারেন @silkcitynews.com আমাদের ফেসবুক পেজে। কোন এলাকা, কোন দিন, কোন সময়ের ঘটনা তা জানাতে ভুলবেন না। আপনার নাম এবং ফোন নম্বর অবশ্যই দেবেন। আপনার পাঠানো খবরটি বিবেচিত হলে তা প্রকাশ করা হবে আমাদের ওয়েবসাইটে।