মেট্রোরেল: স্বপ্ন আর বাস্তবতার ফারাক ঘুঁচতে যাচ্ছে রাজধানীবাসীর!

April 16, 2018 at 8:54 pm

সিল্কসিটিনিউজ ডেস্ক:

নগরবাসীর স্বপ্নের মেট্রোরেলের প্রথম স্প্যান এখন দৃশ্যমান। রাজধানীর উত্তরার দিয়াবাড়িতে দুটি পিলারকে যুক্ত করে এই স্প্যানটি বসানো হয়েছে। শিগগিরিই আগারগাঁও এলাকার দুটি পিলারের উপর আরেকটি স্প্যান বসানো হবে। স্প্যান বসানোর কাজের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন হবে চলতি মাসেই। আগামী বছর ডিসেম্বরের আগেই মেট্রোরেলের উত্তরা-আগারগাঁও অংশ ট্রেন চলাচলের জন্য প্রস্তুত হবে বলে আশা করছেন প্রকল্প সংশ্লিষ্টরা।

২০১৯ সালের ডিসেম্বরের মধ্যে উত্তরা থেকে আগারগাঁও পর্যন্ত কাজ শেষ করতে প্রয়োজনীয় অগ্রগতি শেষ হয়েছে। এছাড়া শিগগিরই রেলের ডিজাইন চূড়ান্ত হবে বলেও জানা যায়। দুইটি পিলারের মধ্যে নয়টি সেগমেন্ট জোড়া লাগিয়ে তৈরি হচ্ছে একটি স্প্যান। আর এটিই বলে দিচ্ছে মেট্রোরেল প্রকল্পের অগ্রগতি। আর জানান দিচ্ছে, স্বপ্ন আর বাস্তবতার ফারাক ঘুঁচছে রাজধানীবাসীর। প্রকল্পের প্রথম পর্বে উত্তরা থেকে আগারগাঁও পর্যন্ত ৯টি টেস্ট পাইলের মধ্যে ৯টিরই নির্মাণকাজ শেষ।

৩৮৩টি চেক বোরিংয়ের মধ্যে শেষ হয়েছে ৩৩৬টির কাজ। আর ২ হাজার ৩৭৮টি বাণিজ্যিক পাইলের মধ্যে ৬৬৩টির কাজও শেষ। এ সপ্তাহেই পুরোপুরি জেগে উঠবে আগারগাঁওয়ে দুটি মূল পিলার।

প্রকল্পের ব্যবস্থাপনা পরিচালক এমএএন ছিদ্দিক জানান, আগারগাঁওয়েও পাইলিংয়ের কাজ শেষ হয়েছে। পিআর ক্যাপের কাজও শেষ হয়েছে। এখন পিআরের কাজ শেষ হয়ে গেলেই তার উপরে স্প্যান বসিয়ে দেয়া হবে।

১১.৭৩ কিলোমিটার ভায়াডাক্ট ও নয়টি ষ্টেশন নির্মাণের কাজের আর্থিক অগ্রগতি ১৭.৩৭ শতাংশ এবং বাস্তব অগ্রগতি ৫ শতাংশ। এছাড়া শেষ হয়েছে রেলের বডির খসড়া ডিজাইন। লাল সবুজ রঙের এই বডি তৈরি হবে অত্যাধুনিক অ্যালুমিনিয়াম দিয়ে। মার্চ ২০১৮ পর্যন্ত পুরো প্রকল্পের সার্বিক অগ্রগতি দাঁড়াবে ১৫ শতাংশ। তাই বলা যায় নির্ধারিত সময়েই শেষ হবে প্রকল্পের কাজ।

Print