শাকিব-অপুর বিবাহ বিচ্ছেদ কার্যকর

March 13, 2018 at 11:28 am

সিল্কসিটিনিউজ ডেস্ক:

গতকাল সোমবার চলচ্চিত্র তারকা দম্পতি শাকিব খান ও অপু বিশ্বাসের বিবাহ বিচ্ছেদ আনুষ্ঠানিকভাবে কার্যকর হয়েছে। ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের (ডিএনসিসি) পক্ষ থেকে বিষয়টি নিশ্চিত করা হয়েছে।
ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশন (ডিএনসিসি) অঞ্চল ৩-এর নির্বাহী কর্মকর্তা হেমায়েত হোসেন বলেন, শাকিব খান ও অপু বিশ্বাসের তালাক বিষয়ে তৃতীয় ও শেষ শুনানি ছিল ১২ মার্চ। আপস-মীমাংসার জন্য তাদের ডাকা হয়েছিল। এর আগে ১২ জানুয়ারি ও ১২ ফেব্রুয়ারি তাদের ডাকা হয়। ১২ জানুয়ারি অপু বিশ্বাস উপস্থিত ছিলেন। অন্য দুটি তারিখে তিনি আসেননি। আর শাকিব খান কোনো তারিখেই উপস্থিত হননি। তাই নিয়ম অনুসারে সময়সীমা ৯০ দিন উত্তীর্ণ হওয়ায় সালিস মামলার নিষ্পত্তি হয়েছে। গতকাল থেকে তালাক কার্যকর হয়েছে। ডিভোর্স মেনে নিয়েছেন অপু।
এর আগে গত ২২ ফেব্রুয়ারি নায়ক শাকিব কর্তৃক স্ত্রী অপুকে তালাকের নোটিস পাঠানোর ৯০ দিন পূর্ণ হয়। আইনগতভাবে ওইদিনই তারকা এ জুটির তালাক কার্যকর হয়। ওই দিনের পর থেকে তারা আর স্বামী-স্ত্রী নন।
বিষয়টি নিয়ে অপু বিশ্বাস গণমাধ্যমকে বলেন, সবকিছু আইনি প্রক্রিয়ায় হয়েছে। এসব নিয়ে এখন আর কিছুই ভাবতে চাই না। সবকিছুই অতীত। আমি এখন কাজ নিয়ে ব্যস্ত আছি। কাজ নিয়েই থাকতে চাই।
উল্লেখ্য, ‘ছেলে জয়কে তালাবদ্ধ করে অপু বয়ফ্রেন্ড নিয়ে কলকাতায় ঘুরতে গেছেন’- এমন অভিযোগ এনে গত বছরের ২২ নভেম্বর শাকিব খান তার আইনজীবী শেখ সিরাজুল ইসলামের মাধ্যমে অপুর কাছে তালাকের নোটিস পাঠান। একই সঙ্গে তিনি শাকিব খানের পক্ষে ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের মেয়র কার্যালয়, অপু বিশ্বাসের ঢাকার নিকেতনের বাসা এবং বগুড়ার ঠিকানায়ও তালাকের এই নোটিস পাঠান।
২০০৮ সালের ১৮ এপ্রিল গোপনে বিয়ে করেন বাংলাদেশি ছবির জনপ্রিয় জুটি শাকিব খান ও অপু বিশ্বাস। ২০১৬ সালের ২৭ সেপ্টেম্বর জন্ম হয় তাদের সন্তান আব্রাম খান জয়। শাকিব-অপু দুজনেই সন্তানের জন্মের বিষয়টি গোপন রাখেন। ২০১৭ সালের ১০ এপ্রিলে একটি টিভি চ্যানেলের সরাসরি অনুষ্ঠানে এসে বিয়ে ও সন্তানের খবর ফাঁস করেন অপু বিশ্বাস। এ সময় তার সঙ্গে ছিল ছয় মাস বয়সী আব্রাম।
ইত্তেফাক
Print