জীবনের ২২ গজে কোহলি-আনুশকা

December 12, 2017 at 12:00 am

সিল্কসিটিনিউজ ডেস্ক:

দিনকয়েক আগে আমির খানের সঙ্গে একটি অনুষ্ঠানে এসেছিলেন বিরাট কোহলি। অনুষ্ঠানের সঞ্চালক কোহলির কাছে জানতে চেয়েছিলেন, আনুশকা শর্মার সবচেয়ে ভালো দিক কোনটি? কোহলি জবাব দেওয়ার আগেই মুখ খুললেন আমির। ‘পিকে’ সিনেমাতে একসঙ্গে কাজ করার অভিজ্ঞতা থেকে ‘মিস্টার পারফেকশনিস্ট’-এর উত্তর, ‘আনুশকার সততা।’

কোহলিও মেনে নিলেন একবাক্যে। ভালোবাসায় নাকি সৎ থাকতে হয় সবসময়। সঙ্গে লাগে বিশ্বাস। সোমবার এই সততা-বিশ্বাসের মিশেলে একে অন্যকে ওয়াদা করলেন কোহলি-আনুশকা। প্রতিশ্রুতি দিলেন ভালোবাসা দিয়ে সারাজীবন বেঁধে রাখবেন একে অন্যকে। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম টুইটারে, বিয়ের খবর নিশ্চিত করে ক্রিকেট ও বলিউডের সম্পর্কটা আরও মধুর করে তুললেন তারা।

বিয়ে করছেন কোহলি-আনুশকা- খবরটা বাতাসে ভাসছিল কয়েকদিন ধরেই। ইতালিতে বিয়ে হচ্ছে, দাওয়াত পেয়েছেন কারা, মুম্বাইয়ের রিসিপশন কেমন হবে- এইসব খবরে ভারতীয় মিডিয়া ছিল উত্তাল। সোমবার বিকেল থেকেই শোনা যাচ্ছিল বিয়ে হয়ে গেছে কোহলি-আনুশকার। শেষমেষ বাংলাদেশ সময় রাত সাড়ে ৯টার দিকে টুইটারে বিয়ের খবর নিশ্চিত করেন ভারতীয় অধিনায়ক ও বলিউড-কন্যা। জীবনের ২২ গজে কোহলির সঙ্গী এখন আনুশকা।

নিজেদের টুইটার অ্যাকাউন্টে ছবিও পোস্ট করেছেন দুজন। কোহলি তার টুইটারে ভক্তদের উদ্দেশে লিখেছেন, ‘আজ আমরা কথা দিলাম সারাজীবন ভালোবাসায় বেঁধে রাখাব একে অন্যকে। আপনাদের এই খবরটা দিতে পেরে আমরা সত্যিই ধন্য। সুন্দর এই দিনটি আরও বিশেষ হয়েছে আমাদের ভক্ত ও শুভাকাঙ্খীদের ভালোবাসা ও সমর্থনে। সবাইকে ধন্যবাদ আমাদের গুরুত্বপূর্ণ এই সফরে সঙ্গী হওয়ার জন্য।’

কোহলির পোস্টের আগেই আনুশকা তার টুইটারে দিয়েছেন বিয়ের খবর। যেখানে বলিউড তারকার পোস্টও একই। প্রতিশ্রুতি, ভালোবাসার সঙ্গে ভক্তদের প্রতি কৃতজ্ঞতা। নতুন জীবন শুরুর ক্ষণে আশীর্বাদ চাই তো!

ক্রিকেট ও বলিউডের পথচলা যে এবাই শুরু হলো এমনটা নয়। এর আগেও প্রেমের বন্ধনে নিজেকে জড়িয়ে নেওয়ার পর বিয়ে পর্যন্ত গড়িয়েছে সম্পর্ক। মোহাম্মদ আজহারউদ্দিন-সংগীতা বিজলানি থেকে শুরু করে হালের হরভজন সিং-গীতা বসরা, যুবরাজ সিং-হ্যাজেল কিচ কিংবা জহির খান-সাগরিকা, ভালোবাসাকে তারা রূপ দিয়েছেন বিয়েতে। তবে তাদের সবার চেয়ে কোহলি-আনুশকার বিয়েটা নিঃসন্দেহে এগিয়ে।

ভারতীয় ক্রিকেটের সবচেয়ে বড় তারকার সঙ্গে বলিউডের শীর্ষসারির নায়িকার বিয়ে বলে কথা!

Print