পদ্মা নদীতে চলছে জাটকা ইলিশ ধরা

October 13, 2017 at 4:21 pm

নিজস্ব প্রতিবেদক, চাঁপাইনবাবগঞ্জ:
সরকারি আইনকে বৃদ্ধাঙ্গলী দেখিয়ে প্রশাসনের নাকের ডগার উপর দিয়ে চাঁপাইনবাবগঞ্জের শিবগঞ্জের পদ্মা নদীতে চলছে ইলিশ মাছ ধরার মহা উৎসব। এসব ইলিশ মাছ বিক্রি হচ্ছে পানির দরে। এমনকি প্রশাসনের আত্মীয়দের বাড়িতে যাচ্ছে পদ্মা নদীর ছোট-মাঝারি ইলিশ মাছ।

সরজমিনে গিয়ে দেখা গেছে, শিবগঞ্জের সর্বশেষ পশ্চিম সীমান্ত মাসুদপুর বিওপি থেকে মহানন্দা ও পদ্মা নদীর মিলনস্থল ওহেদপুর বিওপি পর্যন্ত প্রায় ৬০ কিলোমিটার দীর্ঘ ও ১০ কিলোমিটার প্রস্থ পদ্মা নদীতে শত শত জালে ধরা হচ্ছে ইলিশ মাছ। ব্যস্ত রয়েছে প্রায় ১০ হাজার জেলে।

ধরা মাছ গুলোর ওজন ৫০ গ্রাম থেকে ৮০০ গ্রাম পর্যন্ত। প্রতিদিন সন্ধ্যার পর থেকে শুরু করে ভোর পর্যন্ত নদীর তীরবর্তী বাড়ির মধ্যে সর্বনিম্ন ৫০-৬০ টাকা দরে ও উদ্ধে ১৫০ টাকা কেজি দরে পাইকারি হারে বিক্রি হচ্ছে। প্রতিটি জেলে প্রতি রাতে প্রায় ২০-২৫ কেজি ইলিশ মাছ ধরছে বলে এলাকাবাসীরা জানিয়েছেন।

রাতের অন্ধকারে এমনকি ভোরেও এ সমস্ত মাছ গ্রামে ও পাড়ায় নিম্নে ৭০-৮০ ও উদ্ধে ২৫০ টাকা কেজি দরে বিক্রি হচ্ছে। মাছ ধরার নিরাপত্তার জন্য প্রতিটা জেলে প্রশাসনকে এক কেজি ওজনের দুটি করে ইলিশ মাছ মাসোহারা হিসাবে দিতে হচ্ছে। সে হিসাবে প্রতি রাতে প্রায় ২৫০ মণ ইলিশ মাছ শুধু প্রশাসনের লোকজনকেই দিচ্ছে জেলেরা।

বৃহস্পতিবার রাতে মাছ বিক্রি করার সময় ১২-১৩ বছর বয়সের ছেলে
রামনাথপুর গ্রামের সুজন, সোহেল, বাবু ও জাহাঙ্গীর জানায়, আমরা গরীবের ছেলে, নদীর ধারে বাড়ি। পেটের দায়ে এ সময়ে ইলিশ মাছ ধরি।

এব্যাপারে উপজেলা সিনিয়র মৎস্য কর্মকর্তা বরণ কুমার ম-ল জানান, জনবল
সীমিত হওয়া জোরালো অভিযান চালাতে কিছুটা হিমশিম খেতে হচ্ছে। তবে অভিযান অব্যহত রয়েছে।

 

স/আ

Print